কুমিল্লা

নামাজরত মাকে কুড়াল দিয়ে কুপিয়ে হত্যা

কুমিল্লা, ১১ অক্টোবর- কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে নামাজ পড়া অবস্থায় কুড়াল দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে মাকে হত্যা করেছে আবু বক্কর (৪০) নামের এক যুবক। এ ঘটনায় অভিযুক্তকে আটক করেছে পুলিশ।

রোববার (১১ অক্টোবর) দুপুরে উপজেলার শুভপুর ইউনিয়নের পাশাকোট গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত খায়েরুন নেছা (৮০) ওই গ্রামের ক্বারী আনোয়ার উল্যার স্ত্রী।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, হত্যাকারী আবু বক্কর বিডিআর বিদ্রোহ মামলার আসামি হিসেবে দীর্ঘদিন জেল খেটে বের হয়ে আসে। এরপর থেকে সে অনেকটা মানসিক ভারসাম্য হারিয়ে ফেলে। রোববার দুপুরে তার মা খায়েরুন নেছা নামাজ পড়াকালীন সময়ে ছেলে আবু বক্কর অতর্কিতভাবে ঘরের মধ্যে প্রবেশ করে। এ সময় ঘরে থাকা কুড়াল দিয়ে এলোপাতাড়িভাবে মাকে কোপাতে থাকে সে। এতে ঘটনাস্থলেই খায়রুন নেছার মৃত্যু হয়।

এদিকে, ঘরের অন্য সদস্যদের আত্মচিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে এসে ঘাতক ছেলে আবু বক্করকে আটক করে। পরে স্থানীয়রা গণধোলাই দিয়ে তাকে পুলিশের কাছে সোপর্দ করে।

চৌদ্দগ্রাম থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) শুভ রঞ্জন চাকমা বলেন, ঘাতক ছেলেকে আটক করা হয়েছে। মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। এ ঘটনায় আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে বলে জানান তিনি।

সূত্র: বার্তা২৪
আডি/ ১১ অক্টোবর

Back to top button