জাতীয়

ধর্ষণকারীদের ক্ষেত্রে স্থানীয়ভাবে কোনো আপস, মীমাংসা বা সালিশ করা যাবে না : তোফায়েল আহমেদ

ঢাকা, ১১ অক্টোবর- আওয়ামী লীগের উপদেষ্টামণ্ডলীর সদস্য ও সাবেক বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ বলেছেন, ধর্ষণকারী ও শিশু নির্যাতনকারীদের ক্ষেত্রে স্থানীয়ভাবে কোনো আপস, মীমাংসা বা সালিশ করা যাবে না। রবিবার দুপুরে ভোলার আইনশৃঙ্খলা বিষয়ক কমিটির ভার্চুয়াল সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য এসব কথা বলেন তিনি।

তোফায়েল আহমেদ বলেন, যারা নারী নির্যাতন, ধর্ষণ বা শিশু নির্যাতন করবে, তাদের ব্যাপারে কোনো সালিশ নাই। কারণ সালিশ করে কিছু টাকা জরিমানা করা, এটা কোনো বিচার হতে পারে না। এ ব্যাপারে কোনো দলমত নাই। যে অপরাধী, সে অপরাধী-ই। আইন মোতাবেক তাদের সাজা ভোগ করতেই হবে।

তিনি বলেন, ৩০ লাখ শহীদ রক্ত দিয়ে বাংলাদেশ সৃষ্টি করেছে, সেই বাংলাদেশে আজকে নারী নির্যাতন, শিশু অপহরণ, পাশবিক অত্যাচার হতে পারে না। অপরাধীকে আইন মোতাবেক সাজা দিতেই হবে এবং এই সাজা দ্রুত বাস্তবায়ন করতে হবে।

আরও পড়ুন: ধর্ষণের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদণ্ড হোক এটা আমরাও দাবি করছি : হানিফ

সাবেক এই বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, দলমত নির্বিশেষে ঐক্যবদ্ধভাবে ধর্ষণ, নারী ও শিশু নির্যাতন বন্ধে কাজ করতে হবে। আমরা আর কোনো পাশবিক নির্যাতনের ঘটনা শুনতে চাই না।

এদিকে, ভোলা-বরিশাল ব্রিজ নির্মাণের জন্য মন্ত্রী পরিষদ অর্থনৈতিক বিষয়ক বৈঠকে অনুমোদন পাওয়ায় প্রধানমন্ত্রীকে কৃতজ্ঞতা জানিয়ে তোফায়েল আহমেদ বলেন, আমাদের দীর্ঘ দিনের স্বপ্ন সফল হতে চলেছে। এটি বাস্তবায়িত হলে চট্টগ্রাম থেকে খুলনা পোর্ট পর্যন্ত সহজ যোগাযোগ স্থাপিত হবে।

জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ মাসুদ আলম ছিদ্দিকের সভাপতিত্বে এ সময় বক্তব্য রাখেন পুলিশ সুপার সরকার মোহাম্মদ কায়সার, মনপুরা উপজেলা চেয়ারম্যান সেলিনা রহমান চৌধুরী, চরফ্যাসনের পৌর মেয়র বাদল কৃষ্ণ দেবনাথ, সিভিল সার্জন ডা. ওয়াজেদ আলী, সমাজসেবা উপপরিচালক মো. নজরুল ইসলাম, বিভাগীয় বন কর্মকর্তা তৌহিদুল আলম, প্রেসক্লাব সম্পাদক অমিতাভ অপু ও জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা মাধম চন্দ্র দাসসহ বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তারা।

সূত্র : বিডি-প্রতিদিন
এন এইচ, ১১ অক্টোবর

Back to top button