জাতীয়

স্বাধীনতা ঘোষণার বৈধ অধিকার বঙ্গবন্ধু ছাড়া আর কারও ছিল না

ঢাকা, ১৯ মার্চ – জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ছাড়া স্বাধীনতার ঘোষণা দেওয়ার বৈধ অধিকার কারও ছিল না বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

রোববার (১৯ মার্চ) বিকেলে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে জাতির পিতার জন্মদিন উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় তিনি এ কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, অনেকেই ইতিহাসের মহানায়কের সঙ্গে ইতিহাসের ফুটনোটের তুলনা করেন। স্বাধীনতার ঘোষক আর পাঠক এক কথা নয়। স্বাধীনতার ঘোষণার পাঠক অনেকেই ছিলেন। আবুল কাশেম সন্দ্বীপ, এম এ হান্নান, চট্টগ্রামে তারাও ছিলেন স্বাধীনতার ঘোষণার পাঠক। কিন্তু ঘোষক ছিলেন না।

তিনি বলেন, স্বাধীনতার ঘোষণা দেওয়ার বৈধ অধিকার বঙ্গবন্ধু ছাড়া আর কারও ছিল না। ১৯৭০ সালের নির্বাচনে বাংলার জনগণ বঙ্গবন্ধুকে বিপুল ভোটে বিজয়ী করেছিল। যার মাধ্যমে স্বাধীনতা ঘোষণার বৈধ অধিকার একমাত্র তাকেই দেওয়া হয়। সেই অধিকারে তিনি স্বাধীনতার ঘোষণা দিয়েছিলেন। এটা আমাদের মনে রাখতে হবে।

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করে যারা বাংলার ইতিহাস মুছে দিতে চেয়েছে এখনও তারা ষড়যন্ত্র করছে। এখনও সব ষড়যন্ত্রের মূলে বিএনপি রয়েছে। তারা বাংলাদেশকে আবারও পাকিস্তান বানাতে চায়। আমরা আমাদের প্রিয় মাতৃভূমিকে আর ওই মৃত্যুপতাকায় যেতে দেব না।

সূত্র: আরটিভি নিউজ
আইএ/ ১৯ মার্চ ২০২৩

Back to top button