জাতীয়

তত্ত্বাবধায়ক সরকার ব্যবস্থা আর ফিরে আসার সুযোগ নেই

ঢাকা, ২১ জানুয়ারি – আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেছেন, তত্ত্বাবধায়ক সরকার ব্যবস্থা সর্বোচ্চ আদালত অবৈধ ঘোষণা করা হয়েছে। তাই তত্ত্বাবধায়ক সরকার ব্যবস্থা আর ফিরে আসার সুযোগ নেই। সংবিধান অনুযায়ী আগামী নির্বাচন হবে।

শনিবার দুপুরে আইন ও বিচার বিভাগ ইনস্টিটিউটে বিচারবিভাগীয় কর্মকর্তাদের আয়োজিত দশম ওরিয়েন্টেশন কোর্স উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন মন্ত্রী।

আইনমন্ত্রী বলেন, যে সরকার ক্ষমতায় থাকে সেই সরকারের স্থায়ীত্বকালেই জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এই নির্বাচন সুষ্ঠুভাবে পরিচালনার জন্য নির্বাচন কমিশনকে যেসব সহযোগিতা লাগে এবং যেসব সরকারি বিভাগগুলো তাদের আওতায় থাকে সেইগুলো নির্বাচন কমিশনের নির্দেশনায় চলবে। আর সরকার ডে টু ডে রুটিনে কাজ করবে। সেই আদলেই নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার ঘটনার বিষয়ে আনিসুল হক বলেন, আপনারা (গণমাধ্যম) বলছেন বার বার ঘটছে। আমি বলবো, এখন যেমন বিষয়টি মিডিয়ার নজরে আসছে, আগে কিন্তু এমনটি ছিল না। এ রকম ঘটনা বারে (আইনজীবী সমিতি) ঘটেই থাকে। মাঝে মাঝে এমন হয়, বারের যারা সিনিয়র আছেন তারাই এটা শেষ করে দেন। কখনও কখনও এটা বিজ্ঞ জেলা জজ সাহেব শেষ করে দেন। তবে এটা অত্যন্ত দুর্ভাগ্যজনক যে, একটি ঘটনা তার অধিক্ষেত্রের অতিরিক্ত ঘটে গেছে। এই সমস্যা সমাধান করার জন্য আমরা সচেষ্ট।

তিনি বলেন, আমি আগেও বলেছি, এখনও বলছি, বার এবং বেঞ্চ অধিকন্তু একটি সংসারের মতো। এখানে এরকম ঘটনা ঘটা অস্বাভাবিক কিছু না। কিন্তু এ রকম ঘটনা না ঘটুক এমনটিই আমাদের চাওয়া। আমি মনে করি, এই ঘটনার সঙ্গে যারা সম্পৃক্ত তারাই এ ঘটনার সমাধান করবেন।

আদালত বর্জনের ফলে দুই বিচারক সেখানে থাকবে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, বিচার বিভাগ স্বাধীন, প্রধান বিচারপতি এবং সুপ্রিম কোর্টের জিএ কমিটি বিজ্ঞ বিচারকদের বদলি করেন। এখন এটা তাদের এখতিয়ারধীন। আমি সেখানে কোনও কথা বলবো না।

তিনি বলেন, বিচারকদের সঙ্গে খারাপ আচরণ করলে আইনজীবী ক্ষতিগ্রস্ত না হলেও তার ক্লায়েন্ট ক্ষতিগ্রস্ত হন। কারণ, বিচারকের হাতে কলম থাকে। কোনো দাবির মুখে কোনো বিচারককে বদলি করা হবে না বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

বিচারকদের উদ্দেশে তিনি বলেন, সমস্যা সমাধানে বিচারকদের বড় ভাইয়ের ভূমিকা পালন করতে হবে। তাহলে সমস্যা কমে আসবে। সমস্যা হলে তা ব্যক্তি পর্যায়ে সমাধানের ওপর গুরুত্বারোপ করেন আইনমন্ত্রী।

রাষ্ট্রপতির তালিকায় আইনমন্ত্রীর নাম থাকার বিষয়ে তিনি বলেন, গুজবে কান দেবেন না।

বিচার প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউটের মহাপরিচালক বিচারপতি নাজমুন আরা সুলতানার সভাপতিত্বে কর্মশালায় আইন সচিব মো. গোলাম সারওয়ার বক্তব্য রাখেন।

সূত্র: বাংলাদেশ জার্নাল
এম ইউ/২১ জানুয়ারি ২০২৩

Back to top button