দক্ষিণ এশিয়া

নারীরা অশিক্ষিত, পুরুষরা উদাসীন, তাই জন্মহার বাড়ছে

নয়াদিল্লি, ০৮ জানুয়ারি – রাজ্যে জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণ নিয়ে কথা বলতে গিয়ে বেফাঁস মন্তব্য করলেন বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নীতীশ কুমার। তিনি বলেন, নারীরা ‘অশিক্ষিত’ আর পুরুষরা ‘উদাসীন’। সে কারণেই রাজ্যে জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণ করা যাচ্ছে না।

শনিবার ‘সমাধান যাত্রা’ কর্মসূচিতে বিহারের বৈশালী এলাকায় এক জনসভায় জনসংখ্যা নিয়ে কথা বলতে গিয়ে এই মন্তব্য করেন জেডিইউ প্রধান। তিনি বলেন, যদি নারীরা শিক্ষিত হতেন, তা হলে জন্মহার কমত। এটাই বাস্তব। আজকাল নারীরা শিক্ষিত নন।

এই প্রসঙ্গে নীতীশ আরও বলেছেন, নারীরা যদি শিক্ষিত হতেন, তা হলে জানতেন, অন্তঃসত্ত্বা হওয়া ঠেকাতে কী করণীয়। এ ব্যাপারে তারা সচেতন হতেন। অন্যদিকে পুরুষরা উদাসীন। তাদের মাথাতেই থাকে না যে, রোজ রোজ বাচ্চার জন্ম দেব না।

এদিকে বিহারের মুখ্যমন্ত্রীর এই মন্তব্য প্রকাশ্যে আসতেই বিতর্ক শুরু হয়েছে। নীতীশ অশালীন ভাষায় মন্তব্য করেছেন বলে, তার সমালোচনায় সরব হয়েছে বিরোধী দল বিজেপি। মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে এধরনের মন্তব্য করা শোভন নয় কলে দাবি পদ্মশিবিরের।

এই প্রসঙ্গে বিহারের বিরোধী দলনেতা ও বিজেপি সভাপতি সম্রাট চৌধুরি টুইটারে লিখেছেন, মুখ্যমন্ত্রী নীতীশ কুমার যে শব্দ প্রয়োগ করেছেন, তা অসংবেদনশীল। এই ধরনের শব্দ প্রয়োগ করে উনি মুখ্যমন্ত্রী পদকে কলুষিত করছেন।

সূত্র: বাংলাদেশ জার্নাল
আইএ/ ০৮ জানুয়ারি ২০২৩

Back to top button