দক্ষিণ এশিয়া

কাশ্মিরে রাহুলের সঙ্গী হবেন ফারুক-আবদুল্লাহ-মেহবুবা

নয়াদিল্লি, ২৮ ডিসেম্বর – ভারতের প্রধান বিরোধী কংগ্রেসের ৫ মাসের দীর্ঘ ‘ভারত জোড়ো যাত্রা’ কাশ্মিরে গিয়ে শেষ হবে ফেব্রুয়ারিতে। রাহুল গান্ধী চিঠি লিখে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতানেত্রীকে ভারত জোড়ো যাত্রায় যোগাদানের আহ্বান জানিয়েছিলেন।

তবে তার আহ্বানে সবাই সাড়া দেয়নি। যেমন সমাজবাদী পার্টির অখিলেশ যাদব, বিএসপির মায়াবতীর মতো নেতারা যোগ দেবেন না এ যাত্রায়। তবে কাশ্মিরে ফারুক ও ওমর আবদুল্লার সঙ্গে পিডিপি নেত্রী মেহবুবা মুফতিও রাহুলের যাত্রায় যোগ দেবেন।

অখিলেশ যাদব আগেই জানিয়েছিলেন, তারা এই যাত্রার সমর্থন দিচ্ছেন। কিন্তু রাহুলের সঙ্গে হেঁটে জাতীয় রাজনীতিতে কংগ্রেসের নেতৃত্ব মেনে নিতে যাচ্ছেন, এমন কোনও বার্তা অখিলেশ দেননি।

বিএসপি নেত্রী মায়াবতী এমনিতেই বিজেপির দিকে ঝুঁকে বলে কংগ্রেস নেতাদের অভিযোগ। তাই তিনি রাহুলের সঙ্গে যাত্রায় যোগ দেবেন, এমনটা কংগ্রেস নেতারা আশা করেননি। তবে অখিলেশ, জয়ন্তরা না এলেও তাদের দলের কেউ এই যাত্রায় যোগ দেবেন বলে কংগ্রেস নেতারা এখনও আশা করছেন।

দিল্লি পৌঁছনোর পর আপাতত ভারত জোড়ো যাত্রায় বিরতি চলছে। ৩ জানুয়ারি আবার শুরু হবে যাত্রা।

কংগ্রেস নেতারা কাশ্মিরে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতাদের সঙ্গে কথা বলেছেন। জম্মু-কাশ্মিরে শেষ সরকারে বিজেপি-পিডিপি জোট হয়েছিল। সেই পিডিপির নেত্রী মেহবুবা নিজেই জানিয়েছেন, তিনি রাহুলের অদম্য সাহসকে কুর্নিশ জানাচ্ছেন। এর ফলে জম্মু-কাশ্মিরের তিন প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী রাহুলের যাত্রায় যোগ দেবেন। গুলাম নবি আজাদের সঙ্গে কংগ্রেস ছেড়ে যাওয়া কিছু নেতাও ফিরে এসে রাহুলের যাত্রায় যোগ দিতে পারেন।

সূত্র: ঢাকা পোস্ট
আইএ/ ২৮ ডিসেম্বর ২০২২

Back to top button