জাতীয়

সুন্দরবন ঘুরে গেলেন প্রধানমন্ত্রীকন্যা পুতুল

বাগেরহাট, ২৩ ডিসেম্বর – প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কন্যা ও প্রখ্যাত অটিজম বিশেষজ্ঞ সায়মা ওয়াজেদ পুতুল সুন্দরবনের ঘুরে গেছেন। শুক্রবার (২৩ ডিসেম্বর) দুপুর ১২টার দিকে ছেলে ও মেয়েকে নিয়ে সুন্দরবন পূর্ব বনভিাগের চাঁদপাই রেঞ্জের করমজল পর্যটন ও বন্যপ্রাণী প্রজনন কেন্দ্রে প্রবেশ করেন তিনি। সেখানে ঘণ্টাখানেক থেকে দুপুর ১টার দিকে করমজল ত্যাগ করেন।

করমজল পর্যটন ও বন্যপ্রাণী প্রজনন কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. আজাদ কবির জানান, আগে থেকে কোনো ধরনের নির্দেশনা ছাড়াই হঠাৎ শুক্রবার দুপুরে করমজলে আসেন প্রধানমন্ত্রীর কন্যা সায়মা ওয়াজেদ পুতুল। এ সময় তার সঙ্গে দুই ছেলে-মেয়ে ছিলেন। ঘণ্টা খানেক করমজলে থাকাকালে তিনি ও তার সন্তানেরা হরিণকে নিজ হাতে খাবার খাওয়ান, প্রজনন কেন্দ্রের কুমির দেখেন এবং বাটাগুরবাস্কা কচ্ছপ দেখেন এবং ধরেন। এ সময় তাকে দেখতে পর্যটন কেন্দ্রের রাস্তার দু’পাশসহ আশপাশে ভিড় জমে যায়। তখন সায়মা ওয়াজেদ পুতুল বলেন, ‘আমি আসছি কুমির দেখতে, আর যারা এখানে ভ্রমণে আসছেন তারাও সেসব বাদ দিয়ে শুধু আমাকেই দেখছেন।’
করমজল ঘুরে দুপুর ১টার দিকে তিনি লঞ্চে করে মোংলায় চলে যান। সেখান থেকে ঢাকার উদ্দেশ্যে মোংলা ছাড়েন পুতুল।

 

বন কর্মকর্তা আজাদ কবির আরো বলেন, বুধবার সকালে বিলাসবহুল পাগমার্ক লঞ্চে তিনি সুন্দরবনের অভ্যন্তরে প্রবেশ করেন। পূর্ব সুন্দরবনের বিভিন্ন পর্যটন স্পট ঘুরে দেখে ফেরার পথে শেষে নামেন করমজলে। প্রধানমন্ত্রীর কন্যা বনে প্রবেশ করেছেন সেটি আমিও জেনেছি তাৎক্ষণিক তাকে দেখেই। তিনি এখানে আসবেন এমন কোনো তথ্যও আসেনি আমার কাছে। আকস্মিকতার মধ্য দিয়ে সাক্ষাৎ হলো এত বড় ভিভিআইপির সঙ্গে। খুব ভাল লেগেছে। তার সঙ্গে ছবিও তুলেছি এবং বন্যপ্রাণী সম্পর্কে যতটুকু সম্ভব ধারণা দিতে পেরেছি। অল্প সময়েই বুঝছি তিনি খুবই মিশুক ও নিরাহংকারী।

তিনি আরো বলেন, শুক্রবার করমজলে ঘুরতে আসা পর্যটকদের কাছে বাড়তি আকর্ষণ ছিলো সায়মা ওয়াজেদ পুতুল। কারণ সবাই তাকে খুব কাছ থেকে দেখেছেন, যেটি আগে কোনোদিন কোনোভাবেই সম্ভব হয়নি।

সূত্র: জাগোনিউজ
আইএ/ ২৩ ডিসেম্বর ২০২২

Back to top button