কানাডা

উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে বুয়েট এলামনাই এসোসিয়েশন কানাডার নির্বাচন অনুষ্ঠিত

টরন্টো, ২১ ডিসেম্বর – গত শনিবার ১০ই ডিসেম্বর বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে বুয়েট এলামনাই এসোসিয়েশন কানাডার বহুল প্রতীক্ষিত নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। নির্বাচনকে কেন্দ্র করে কানাডায় অভিবাসী বুয়েট এলামনাইদের মধ্যে উৎসবের আমেজ তৈরী হয়। এবারের নির্বাচনে ভোটাররা ইমেইল এর মাধ্যমে ৬ থেকে ১০ই ডিসেম্বর পর্যন্ত তাদের ভোট প্রয়োগ করেন। পরের দিন ১১ই ডিসেম্বর প্রার্থী ও উৎসুক ভোটারদের উপস্থিতিতে নির্বাচন কমিশন কয়েক ঘন্টা ব্যাপী ভোট গণনা শেষে নির্বাচনের ফল ঘোষণা করেন। ভোটের ফলাফল অনুযায়ী এবারের নির্বাচনে বিজয়ী হয়েছেন সহিদ উদ্দিন হিরণ, আব্দুস সালাম লায়ন, মনীষ পাল, নাজনীন সুলতানা ডেইজী , জাহাঙ্গীর চৌধুরী, গোলাম মহিউদ্দিন , আমিনুল হক, তানজিলুর রহমান, ইউসুফ তালুকদার, রতন রায় এবং শুভ্র চক্রবর্তী। নির্বাচনী ফল ঘোষণার পর প্রার্থীদের মধ্য থেকে মোহাম্মদ আলী তারিক বিজয়ীদের অভিনন্দন জানান। উল্লেখ্য, এবারকার নির্বাচনে মোট সতর জন প্রাথী এগারটি পদের জন্য প্রতিদ্বন্ধিতা করেন।

নির্বাচনে বিজয়ের পর অনুভূতি ব্যক্ত করতে গিয়ে সহিদ উদ্দিন হিরণ বলেন, এ বিজয় কোনো ব্যক্তি বিশেষের নয়, এটি বুয়েট এলামনাই সবারই বিজয়। সুষ্ঠূ নির্বাচন অনুষ্ঠানের জন্য তিনি নির্বাচন কমিশন, প্রার্থী এবং ভোটারদের সবাইকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানান এবং সবার প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। সর্বাধিক ভোটে বিজয়ী প্রার্থী আব্দুস সালাম তার প্রতিক্রিয়ায় বলেন, বুয়েট এলামনাই এসোসিয়েশন এর ইতিহাসে এ নির্বাচন আরেকটি মাইল ফলক হয়ে থাকবে। আরেক বিজয়ী প্রার্থী মনীষ পাল ভোটারদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেন এবং বলেন, এ নির্বাচনের মাধ্যমে সংগঠন হিসেবে বুয়েট এলামনাই এসোসিয়েশন আরো সামনের দিকে এগিয়ে যাবে।

নাজনীন সুলতানা বিজয় পরবর্তী অনুভূতি জানাতে গিয়ে বলেন, নির্বাচনের মাধ্যমে বুয়েট এলামনাই এসোসিয়েশন নতুন উদ্যমে তাদের কার্যক্রম পরিচালনা করবে । গোলাম মহিউদ্দিন, শুভ্র চক্রবর্তী , রতন রায় , জাহাঙ্গীর চৌধুরী , আমিনুল হক , তানজিলুর রহমান, ইউসুফ তালুকদার প্রত্যেকেই অকুন্ঠ সমর্থনের জন্য ভোটারদের প্রতি তাদের আন্তরিক কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।

উল্লেখ্য, ২০১১ সালের ১০ই সেপ্টেম্বর সংগঠনটি গঠিত হবার পর তৃতীয় বারের মতো এলামনাইদের সরাসরি ভোটে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। কানাডায় অভিবাসী বুয়েটের প্রাক্তন শিক্ষার্থীরা রেজিস্ট্রেশন এর মাধ্যমে নির্বাচনে ভোটার হবার জন্য তালিকাভুক্ত হন। কানাডার বিভিন্ন প্রদেশ থেকে তালিকাভুক্ত ভোটারদের ষাট শতাংশেরও বেশি স্বতস্ফুর্তভাবে নিজেদের ভোট প্রদান করেন।

অন্টারিও ছাড়া ও কানাডার অন্যান্য প্রদেশ থেকে বিপুল সংখ্যক এলামনাই অত্যন্ত আগ্রহ সহকারে ইমেইল এর মাধ্যমে তাদের পছন্দের প্রাথীদের ভোট প্রদান করেন। উল্লেখ্য, বুয়েট এলামনাই এসোসিয়েশন কানাডা প্রতিষ্ঠার পর থেকে বাঙালী কম্যুনিটির মধ্যে পেশাজীবীদের কোনো সংগঠনে সরাসরি ভোটের মাধ্যমে কার্যনির্বাহী কমিটি নির্বাচনের উদ্যোগ প্রথম গ্রহণ করে।

উল্লেখ্য, নির্বাচনী কার্যক্রম সুষ্ঠুভাবে পরিচালনার জন্য মোহাম্মদ রহমান রিপুকে প্রধান করে তিন সদস্যের নির্বাচন কমিশন গঠন করা হয়। কমিশন এর অন্য দুই সদস্য ছিলেন খালেদ মামুন এবং পল্ললব ঘোষ। বিদায়ী কমিটির পক্ষ থেকে ড: দেলোয়ার হোসেন নির্বাচন কমিশন এর কাছে ভোটার তালিকা চূড়ান্তকরণ এবং নির্বাচন সংক্রান্ত যাবতীয় বিষয়ে যোগাযোগের দায়িত্ব পালন করেন।

৪ঠা নভেম্বর সংগঠন থেকে প্রাথমিক ভোটার তালিকা প্রকাশ করা হয় এবং ১০ই নভেম্বর পর্যন্ত যারা সদস্য হয়েছেন, তাদেরকে অন্তর্ভুক্ত করে ১২ নভেম্বর নির্বাচন কমিশন চূড়ান্ত ভোটার তালিকা প্রকাশ করে। প্রাথী মনোনয়নের সর্বশেষ দিন ছিল ২১ নভেম্বর। সংগঠনের গঠনতন্ত্র অনুসারে নির্বাচনের মাধ্যমে এগারো সদস্যের পরিচালক মন্ডলী নির্বাচনের বিধান রাখা হয়।

গঠনতন্ত্র অনুযায়ী প্রথম দফা নির্বাচনে বিজয়ীদের মধ্যে নির্বাচিতদের মধ্যে গোপন ব্যালটের মাধ্যমে এগারোটি পদে আবারো নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। ২০ ডিসেম্বর স্থানীয় একটি রেঁস্তোরার কনভেনশন মিলনায়তনে এই নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। দ্বিতীয় দফার এই নির্বাচনে সভাপতি পদে বিজয়ী হন সহিদুদ্দিন হিরণ , সহ সভাপতি পদে আব্দুস সালাম , পরিচালক প্রশাসন পদে মনীষ পাল , পরিচালক প্রফেশনাল ডেভেলপমেন্ট পদে নাজনীন সুলতানা, পরিচালক অর্থ তানজিলুর রহমান, পরিচালক সদস্য আমিনুল হক, পরিচালক কালচারাল পদে গোলাম মহিউদ্দিন, পরিচালক পাবলিসিটি এন্ড কম্যুনিকেশন ইউসুফ তালুকদার, পরিচালক সোশ্যাল ডেভেলপমেন্ট পদে জাহাঙ্গীর চৌধুরী, পরিচালক ইয়ুথ এন্ড চাইল্ড অ্যাফেয়ার্স পদে রতন রায় এবং পরিচালক তথ্য প্রযুক্তি পদে শুভ্র চক্রবর্তী। প্রসংগত, বর্তমান কমিটির মেয়াদ এবছরের ৩১ ডিসেম্বর শেষ হতে চলেছে এবং নবনির্বাচিত কমিটি নতুন বছরের শুরুতে ২০২৩-২৪ মেয়াদের জন্য তাদের কার্যক্রম শুরু করতে যাচ্ছে।

Back to top button