ঢালিউড

টেনশনে টেলিভিশন বন্ধ করে রেখেছিলেন

ঢাকা, ১৯ ডিসেম্বর – কাতারে শ্বাসরুদ্ধকর ফাইনালে টাইব্রেকারের ফ্রান্সকে হারিয়ে মেসির হাতে উঠেছে এবারের বিশ্বকাপ।

এই ম্যাচে প্রিয় দল, প্রিয় খেলোয়াড়ের হাতে বিশ্বকাপ দেখে আনন্দে আত্মহারা ঢাকাই চলচ্চিত্রের নায়িকা পরীমনি।

জয়ের উচ্ছ্বাসের ঘোরই কাটছে না।পরীমনি বলেন, ‘বিশ্বাস করেন, এখনো আমি ঘোরের মধ্যে আছি। মনে হচ্ছে এখনো খেলা চলছে।

খেলার ফলাফল এই বুঝি কী হয়ে যায়। ঘোরই কাটছে না। আমার জীবনে এমন শ্বাসরুদ্ধকর ম্যাচ আগে দেখিনি। খেলা চলাকালে প্রতিটি মুহূর্ত আমাকে আতঙ্কিত করেছে।

প্রিয় দল আর্জেন্টিনার প্রাণভোমড়া মেসির প্রচণ্ড ভক্ত পরীমনি বিশ্বকাপের শুরু থেকেই তাকে (মেসি) নিয়ে তার উন্মাদনার ছবি, ভিডিও নিজের ফেসবুক পেজে প্রকাশ করে আসছিলেন পরীমনি।

কিন্তু ফাইনাল খেলায় প্রতিপক্ষ দল ফ্রান্স, খেলোয়াড় এমবাপ্পেকে নিয়ে কিছুটা টেনশনেই ছিলেন তিনি। তাই টেলিভিশন বন্ধ করে খেলা না দেখার চিন্তা করেছিলেন। খেলা শুরুর পর কিছু সময়ের জন্য টেলিভিশন বন্ধও করে রেখেছিলেন তিনি।

পরীমনি বলেন, যখন মেসিরা দুই গোল দিয়ে দেয়, তখন রাজ আমাকে খবরটি জানায়। আমি চিৎকার দিয়ে আবার খেলা দেখতে বসি।এরপর অঘটন শুরু হয়। খেলার শেষ পর্যায়ে গিয়ে ফ্রান্স গোল পরিশোধ করে দিলে পরীমনি আবার টেনশনে পড়ে যান।

তিনি বলেন, যখন গোল পরিশোধ হয়ে যায়, আমার হৃৎস্পন্দন বেড়ে যায়। আমি আর টেলিভিশনের সামনে থাকতে পারিনি। ওই সময় আমার যা অবস্থা হয়েছিল, আর্জেন্টিনা হেরে গেলে আমাকে নির্ঘাত হাসপাতালে নিতে হতো রাজকে।

আইএ/ ১৯ ডিসেম্বর ২০২২

Back to top button