জাতীয়

বিএনপি-পুলিশ সংঘর্ষ: সব পক্ষকে শান্ত থাকার আহ্বান ফখরুলের

ঢাকা, ০৭ ডিসেম্বর – রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে দলটির নেতাকর্মীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ হয়েছে। বুধবার (৭ ডিসেম্বর) দুপুর আড়াইটার দিকে শুরু হওয়া এ সংঘর্ষে এখন পর্যন্ত ২০ জনের আহত হওয়ার তথ্য পাওয়া গেছে। এ অবস্থায় পরিস্থিতি শান্ত রাখতে দলীয় নেতাকর্মী ও পুলিশের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

বুধবার বিকেলে নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনের সড়কে বসে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন মির্জা ফখরুল। এ সময় তিনি এ আহ্বান জানান। এ সময় দুপুরের সংঘর্ষকে অনাকাঙ্ক্ষিত বলেও উল্লেখ করেন বিএনপি মহাসচিব।

তবে মির্জা ফখরুল অভিযোগ করেন তাকে নয়াপল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয় প্রবেশ করতে দেওয়া হচ্ছে না। বল প্রয়োগ করে তাকে কার্যালয়ের সামনে বসিয়ে রাখা হয়েছে বলেও দাবি করেন তিনি।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, বিএনপির নেতাকর্মীরা বুধবার সকাল থেকে নয়াপল্টনে কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে জড়ো হতে শুরু করেন। দুপুরে নেতাকর্মীদের বেশ ভিড় দেখা যায়। এসময় পুলিশ তাদের সরিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করে।

এসময় পুলিশ বিএনপি নেতাকর্মীদের লক্ষ্য করে টিয়ারশেল ও রাবার বুলেট ছোড়ে। বিএনপির নেতাকর্মীরাও লাঠিসোঁটা নিয়ে পুলিশকে ধাওয়া করে। দুই পক্ষের ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ায় নয়াপল্টন উত্তপ্ত হয়ে ওঠে।

পরে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনের সড়কে বিএনপির নেতাকর্মীরা দফায় দফায় মিছিল করেন। সড়কে টায়ার জ্বালিয়ে আগুন লাগিয়ে দেন।

এদিকে, এ সংঘর্ষের ঘটনায় সাংবাদিকসহ অন্তত ২০ জন আহত হয়েছেন। তাদের মধ্যে বিএনপির নেতাকর্মী ও পুলিশ সদস্যও রয়েছেন।

সূত্র: জাগো নিউজ
এম ইউ/০৭ ডিসেম্বর ২০২২

Back to top button