এশিয়া

জাপান সীমান্তের কাছে ক্ষেপণাস্ত্র ব্যবস্থা মোতায়েন করেছে রাশিয়া

মস্কো, ০৭ ডিসেম্বর – জাপান সীমান্তের কাছে প্রতিরক্ষা ক্ষেপণাস্ত্রব্যবস্থা মোতায়েন করেছে রাশিয়া। জাপান ও রাশিয়ার কামচাটকা উপদ্বীপের মধ্যে প্রসারিত দ্বীপপুঞ্জের কাছাকাছি কৌশলগতভাবে অবস্থিত উত্তর কুরিল দ্বীপে উপকূলীয় এ প্রতিরক্ষাব্যবস্থা মোতায়েন করা হয়েছে।

সোমবার রুশ প্রতিরক্ষা দপ্তর থেকে এ তথ্য জানানো হয়েছে। খবর সিএনএনের।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, রাশিয়ার দখলে থাকা দক্ষিণ কুরিল দ্বীপপুঞ্জের ওপর নিজেদের মালিকানা দাবি করে আসছে জাপান। দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময় দ্বীপটিতে দখল করেছিল রাশিয়া। এ নিয়ে দুই দেশের মধ্যে শীতল সম্পর্ক রয়েছে।

রাশিয়ান প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, প্যারামুশির দ্বীপে বেসশন ক্ষেপণাস্ত্রব্যবস্থা মোতায়েন করা হয়েছে। এই ক্ষেপণাস্ত্রগুলো ৫০০ কিলোমিটার দূরের লক্ষ্যবস্তুতে আঘাত হানতে সক্ষম।

এক বিবৃতিতে মন্ত্রণালয় বলেছে, ‘প্রশান্ত মহাসাগরীয় নৌবহরের উপকূলীয় সেনারা সন্নিহিত এলাকা ও প্রণালি এলাকাগুলো নিয়ন্ত্রণ করতে সার্বক্ষণিক নজর রাখা হবে।’

মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, প্যারামুশিরে একটি সামরিক ক্যাম্প স্থাপন করা হয়েছিল যেখানে কর্মীদের জন্য বছরব্যাপী পরিষেবা, আবাসন, বিনোদন এবং খাবারের সুযোগ রয়েছে। কুরিল পর্বতমালার কেন্দ্রীয় অংশে মতুয়া দ্বীপে রাশিয়া বেসশন ক্ষেপণাস্ত্রব্যবস্থা স্থাপনের এক বছর পর এখানে এ ক্ষেপণাস্ত্রব্যবস্থা স্থাপন করা হয়েছে।

মঙ্গলবার জাপানের প্রধান মন্ত্রিপরিষদ সচিব হিরোকাজু মাতসুনো সংবাদ সম্মেলনে জানিয়েছেন, সরকার রাশিয়ার সামরিক কার্যকলাপ নিবিড়ভাবে পর্যবেক্ষণ করবে।

সূত্র: যুগান্তর
আইএ/ ০৭ ডিসেম্বর ২০২২

Back to top button