পশ্চিমবঙ্গ

মোদির ডাকে দিল্লিতে মমতা, চাদর চড়াবেন আজমীর শরীফে

কলকাতা, ০৫ ডিসেম্বর – জি-২০ সম্মেলনের প্রাক-প্রস্তুতি বৈঠকে যোগ দিতে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির আমন্ত্রণে চার দিনের সফরে দিল্লি গেলেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আগামী ২০২৩ সালে জি-২০ জোটভুক্ত দেশগুলোর সম্মেলনের সভাপতিত্ব করার দায়িত্ব পেয়েছে ভারত। আন্তর্জাতিক নেতাদের এ সমাবেশের সুষ্ঠু আয়োজনের স্বার্থে সব রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীকে নিয়ে আজ সোমবার বিকেল ৫টায় দিল্লিতে বৈঠক হওয়ার কথা রয়েছে। ওই বৈঠকে সভাপতিত্ব করবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। এ বৈঠকেই উপস্থিত থাকবেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়সহ ভারতের সব রাজ্য ও কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলের মুখ্যমন্ত্রী ও গর্ভনরেরা।

সোমবার সকলের দিকে দিল্লির উদ্দেশ্যে রওনা দেন মমতা। এদিন মুখ্যমন্ত্রী মমতার সঙ্গে দিল্লি সফরে গেলেন তার ভাতিজা ও তৃণমূল কংগ্রেসের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়।

দিল্লি যাওয়ার আগে কলকাতা বিমানবন্দরে দাঁড়িয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, ‘আজ বিকেল ৫টায় প্রধানমন্ত্রী জি-২০ সম্মেলনের প্রস্তুতি বৈঠক ডেকেছেন। আগামী বছর এ সম্পর্কিত বেশ কিছু বৈঠক পশ্চিমবঙ্গেও হবে। তবে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে ওয়ান-টু-ওয়ান বৈঠকের সম্ভাবনা নেই।’

এদিন দিল্লী যাওয়ার আগে জি-২০ সম্মেলনের লোগোতে বিজেপির নির্বাচনি প্রতীক পদ্মফুল কেন রেখেছেন মোদি? লোগোতে বাঘ বা ময়ূর নেই কেন, এ নিয়ে প্রশ্ন তোলেন মমতা।

সফরসূচি অনুযায়ী প্রধানমন্ত্রী বৈঠক শেষে আগামীকাল মঙ্গলবার রাজস্থানের আজমীর শরীফে যাবেন মমতা। সেখানে সুফি সাধক মইনুদ্দিন চিশতির দরগায় চাদর চরাবেন মমতা। গত প্রায় কয়েকশ বছর ধরে ওই সুফি সাধক মইনুদ্দিন চিশতির দরগায় চাদর চড়ান হিন্দু-মুসলমান নির্বিশেষে সব ধর্মের মানুষ। সেই সুফি ভাবাবেগকে গুরুত্ব দিয়ে আজমীর শরীফের দরগায় যেমন ভারতীয় রাজনীতিক রাজনীতিবিদরা চাদর চড়িয়েছেন, তেমনি বিদেশের রাষ্ট্রনেতারাও ভারত সফরে এসে আজমীর শরীফ পরিদর্শন করে চাদর চড়িয়েছেন। আর এবার সেখানেই যাচ্ছেন মমতা।

এরপর আজমীর শরীফের কাছেই পৃথিবীর ‘সৃষ্টিকর্তা ভগবান ব্রহ্মা দেবের মন্দির’ পুস্কর নামক জায়গায় ভগবান ব্রহ্মার মন্দির দর্শনে যাবেন মমতা। মন্দির সংলগ্ন পুস্করের হ্রদের সামনে গিয়েও প্রার্থনা করেন পুণ্যার্থীরা। সেখানেও যাবেন মমতা। এ ব্যাপারে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘মঙ্গলবার সকালে আজমীর শরীফ যাব, সেখান থেকে পুস্কর যাব, এরপর রাতে ফের দিল্লিতে ফিরে আসব।’

এরপরে বুধবার দলের সমস্ত সংসদ সদস্যদের নিয়ে একটি বৈঠক করবেন তৃণমুলপ্রধান।

সূত্র: সমকাল
আইএ/ ০৫ ডিসেম্বর ২০২২

Back to top button