ত্রিপুরা

পাখি শিকার করতে গিয়ে নিজের বুকে গুলি

আগরতলা,২৫ নভেম্বর -ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যে বোনকে নিয়ে পাখি শিকারে বের হয় দানিময় চাকমা নামে ১৪ বছরের এক কিশোর। কিন্তু বনের ভেতরে প্রবেশের পর ঘটে অন্য রকম ঘটনা। সম্প্রতি ওই কিশোরের মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। গুরুতর আহত তার ৯ বছর বয়সী বোন লক্ষ্মীরানি চাকমা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

পুলিশ বলছে, গত বুধবার ধালাউ জেলার জলচন্দ্র কারবারি পাড়ায় গভীর জঙ্গল থেকে গুলিবিদ্ধ এক কিশোরের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় দ্রুত তদন্তে নামে পুলিশ।

পরে ওই কিশোরের ছোট বোনের দেওয়া তথ্যে জানা যায়, ‘বড় ভাইয়ের সঙ্গে বনের ভেতরে পাখি শিকারে বের হয় সে। কিন্তু পাখি শিকারের বদলে তার ভাই নিজের বুকে গুলি চালায়। এসময় তাকে ধরতে গিয়ে আরও একটি গুলি এসে লাগে তার মাথায়। পরে স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যায়।

পুলিশ জানিয়েছে, দানিময়ের সঙ্গে একটি দেশি পিস্তল ছিল। জঙ্গলের মধ্যে হঠাৎই নিজের বুকে গুলি চালায় ওই কিশোর। দেখামাত্রই দৌড়ে যায় তার ছোট বোন। সে সময় আরও এক রাউন্ড গুলি ছোড়ে ওই কিশোর। সেটি তার বোনের মাথায় লাগে। ঘটনাস্থলেই ওই কিশোরের মৃত্যু হয়।

তবে পাখি শিকার করতে গিয়ে কেন নিজের বুকে গুলি চালিয়েছে ওই কিশোর সে বিষয়টি এখনও স্পষ্ট নয়। তবে ঘটনাটি তদন্ত করে খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

সূত্র: জাগোনিউজ
আইএ/ ২৫ নভেম্বর ২০২২

Back to top button