জাতীয়

সুলতানা কামালরা আওয়ামী অধিকার রক্ষার কর্মী

ঢাকা, ০৫ অক্টোবর – বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেছেন, সাবেক তত্ত্বাবধায়ক সরকারের উপদেষ্টা সুলতানা কামালরা মানবাধিকার কর্মী নয়, আওয়ামী অধিকার রক্ষার কর্মী। বুধবার দুপুরে রাজধানীর নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে ‘বিশ্ব শিক্ষক দিবস’ উপলক্ষে শিক্ষক কর্মচারী ঐক্য জোটের বিক্ষোভ সমাবেশে তিনি এ মন্তব্য করেন।

সমাবেশে ‘ইন্ডিয়া টুডে’তে প্রকাশিত সুলতানা কামালের সাক্ষাৎকার প্রসঙ্গে রিজভী বলেন, যখন ভোলা, যশোর, মুন্সিগঞ্জ এবং নারায়ণগঞ্জে বিএনপি ও যুবদলের কর্মীকে হত্যা করা হয়েছে, সুলতানা কামাল তখন কোথায় ছিলেন? প্রতিবাদ তো করলেন না, তাহলে আপনারা কিসের মানবাধিকার কর্মী?

বিএনপির এই নেতা সুলতানা কামালকে ‘আওয়ামী অধিকারকর্মী’ আখ্যা দিয়ে বলেন, আপনি আওয়ামী লীগের স্বার্থের যে অধিকার, সেই অধিকারের কর্মী। এদেশের জনগণের যে অধিকার, সেটা আপনার মধ্যে নেই। আপনি চান আওয়ামী ফ্যাসিবাদ ক্ষমতায় থাকুক। আওয়ামী লীগ যেভাবে বিএনপি নেতাকর্মীদের নির্যাতন করছে, গুম করেছে, এটা চালু থাকুক। এ কারণে তিনি (সুলতানা কামাল) অন্য দেশে সাক্ষাৎকার দিয়ে শেখ হাসিনাকে টিকিয়ে রাখতে চান। সুলতানা কামালের বক্তব্যের প্রতিবাদ জানান রিজভী।

আরেক বুদ্ধিজীবী মুনতাসির মামুন প্রসঙ্গ রিজভী বলেন, তিনি বলেছেন ‘আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় না থাকলে অনেকেই দেশে থাকতে পারবে না’। কেন থাকতে পারবে না? জিয়াউর রহমান ক্ষমতায় ছিলেন, আপনি চাকরি করেননি? বেগম জিয়ার ক্ষমতার সময় আপনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ছিলেন। কোথায় পালিয়ে গিয়েছিলেন? বরং আপনি দেশবিরোধী কাজ করেছেন। আপনি এবং আপনার বন্ধু শাহরিয়ার কবির বিদেশে গিয়ে দেশের বিরুদ্ধে কলঙ্ক রটিয়েছেন।

সুলতানা কামালদের সাক্ষাৎকার আর মুনতাসির মামুনের কোনো বিবৃতি দেশের স্বাধীনতাকামী মানুষকে গণতন্ত্রকে বিচলিত করতে পারবে না মন্তব্য করে রিজভী বলেন, বরং আজ তারা দালাল হিসেবে চিহ্নিত হয়েছে।

শিক্ষক-কর্মচারী ঐক্য জোটের চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ সেলিম ভূইয়ার সভাপতিত্বে বিক্ষোভ সমাবেশে আরও বক্তব্য দেন, বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল্লাহ আল নোমান, সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুস সালাম আজাদ প্রমুখ।

সূত্র: বিডিপ্রতিদিন
এম ইউ/০৫ অক্টোবর ২০২২

Back to top button