এশিয়া

জাতিসংঘের বিমান চলাচল পরিষদের পদ হারাল রাশিয়া

মস্কো, ০২ অক্টোবর – রাশিয়া শনিবার জাতিসংঘের বিমান চলাচল সংস্থার গভর্নিং কাউন্সিলে পুনঃনির্বাচনে পর্যাপ্ত ভোট জিততে ব্যর্থ হয়েছে। যা ইউক্রেনে আক্রমণের জন্য পশ্চিমা দেশগুলোর রাশিয়ার বিরুদ্ধে নেয়া আরও একটি পদক্ষেপ।

আন্তর্জাতিক বেসামরিক বিমান চলাচল সংস্থার (আইসিএও) ৩৬-দেশের গভর্নিং কাউন্সিলে থাকার জন্য প্রয়োজনীয় ৮৬টি ভোট পেতে ব্যর্থ হয়েছে রাশিয়া।

কাউন্সিলের সভাপতি এবং দক্ষিণ আফ্রিকার সিভিল এভিয়েশনের মহাপরিচালক পপি খোজা, পরিস্থিতিকে ‘অভূতপূর্ব’ বলে অভিহিত করেছেন।

রাশিয়া, জি৭, চীন, ব্রাজিল এবং অস্ট্রেলিয়ার সাথে আইসিএও-এর ৩৬-সদস্যের কাউন্সিলে “বিমান পরিবহনে প্রধান গুরুত্বপূর্ণ দেশ হিসাবে স্থান দখল করে আছে। ভোটে হারার পর রাশিয়া এখন সাধারণ সদস্য হিসেবেই থাকবে।

রাশিয়ান প্রতিনিধি বলেছেন, ভোটের ফলাফলের জন্য দুঃখ প্রকাশ করে বলতে চাই, আমরা এটাকে সম্পূর্ণ রাজনৈতিক পদক্ষেপ হিসেবে দেখি এবং বেসামরিক বিমান চলাচলের ক্ষেত্রে রাশিয়ার সামরিক অবস্থানের সাথে এর কোনো সম্পর্ক নেই।

কানাডায় ইউক্রেনের রাষ্ট্রদূত ইউলিয়া কোভালিভ, ভোটে রাশিয়াকে ইউক্রেনের সার্বভৌম আকাশসীমা লঙ্ঘনের জন্য দায়ী করেছেন। তিনি যুক্তি দিয়েছিলেন, বেসামরিক বিমানবন্দরে বোমা হামলা, যেটি ১৯৪৪ সালের একটি মূল চুক্তির বিরুদ্ধে যায় যা বৈশ্বিক বিমান চলাচলের মূল নীতি নির্ধারণ করে।

এদিকে কানাডা এবং ইউরোপ ভোটের আগে বলেছিল যে তারা কাউন্সিলে রাশিয়ার পুনর্নির্বাচনের বিরোধিতা করবে।

পশ্চিমা দেশগুলো আরও বলেছে যে রাশিয়া অবৈধভাবে শত শত বিদেশী জেট বাজেয়াপ্ত করেছে, যে অভিযোগ মস্কো অস্বীকার করে। রাশিয়া মার্চ মাসে দেশটির বিমান সংস্থাগুলিকে দেশের বিমানের রেজিস্টারে বিদেশী সংস্থাগুলির কাছ থেকে ভাড়া নেয়া বিমানগুলি রাখার অনুমতি দেয়। সুতরাং রাশিয়াকে অবশ্যই এর শাস্তি পেতে হবে।

উল্লেখ্য, ১৯৩টি দেশের আইসিএও সম্মেলন, প্রতি তিন বছর অন্তর অনুষ্ঠিত হয়। তবে করোনা মহামারী এবং ইউক্রেন যুদ্ধের পর প্রথম।

সূত্র: বাংলাদেশ জার্নাল
আইএ/ ০২ অক্টোবর ২০২২

Back to top button