উত্তর আমেরিকা

পুতিনের দখল ও সংযুক্তিকে কখনও স্বীকৃতি দেবে না যুক্তরাষ্ট্র

ওয়াশিংটন, ৩০ সেপ্টেম্বর – ইউক্রেনে রাশিয়ার ভূখণ্ড দখল ও সংযুক্তিকে কখনোই স্বীকৃতি দেবেন না বলে সাফ জানিয়ে দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। এসময় তিনি তিনবার ‘কখনও না’ উচ্চারণ করে হুঁশিয়ারি দেন। শুক্রবার রুশ প্রেসিডেন্ট পুতিন ইউক্রেনের চারটি অঞ্চলকে রাশিয়ার সঙ্গে সংযুক্তির ঘোষণার আগেই এমন মন্তব্য করলেন বাইডেন।

গত ফেব্রুয়ারি থেকে ব্যাপক হামলা চালিয়ে ইউক্রেনের লুহানস্ক, ডনেস্ক, জাপোরোজ্জিয়া এবং খেরসনকে দখল করে নেয় রুশ বাহিনী। এরপরই তথাকথিত ভোটের আয়োজন করে মস্কো সমর্থিত সেখানকার বিচ্ছিন্নতাবাদী নেতারা। রাশিয়ার দাবি ইউক্রেনের ওই অঞ্চলগুলোর ৯৯ শতাংশ মানুষ রুশ ফেডারেশনের সঙ্গে যুক্ত হওয়ার পক্ষে ভোট দিয়েছেন। পশ্চিমা নেতারা ভোট এবং ফলাফল প্রত্যাখ্যান করেছেন।

এমন বাস্তবতায় পুতিন আজ শুক্রবার মস্কোর স্থানীয় সময় বিকেল ৩টায় ভাষণ দিতে যাচ্ছে বলে জানান ক্রেমলিনের মুখপাত্র দিমিত্রি পেসকভ।

এ নিয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্ট বাইডেন বলেন, ‘আমি এই বিষয়ে স্পষ্ট করতে চাই যে ইউক্রেনের সার্বভৌম ভূখণ্ডে রাশিয়ার দাবিকে কখনোই স্বীকৃতি দেবে না যুক্তরাষ্ট্র।’

এই পরিস্থিতেই বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতে রুশ অধিকৃত ইউক্রেনের খেরসন এবং জাপোরিজ্জিয়া অঞ্চলকে ‘স্বাধীনতার’ স্বীকৃতি দিয়ে ডিক্রি জারি করেছেন প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। জারি করা আদেশে পুতিন বলেন, ‘আমি দক্ষিণ ইউক্রেনের জাপোরিজ্জিয়া এবং খেরসনের সার্বভৌমত্ব ও স্বাধীনতার স্বীকৃতির আদেশ দিচ্ছি।’

তার এমন আদেশে ইউক্রেনের দুইটি অঞ্চল মস্কোর সঙ্গে সংযুক্তিকরণের পথ প্রশস্ত হলো। গত ফেব্রুয়ারিতে ডনবাসের লুহানস্ক ও ডনস্ককে একইভাবে স্বীকৃতি দিয়ে ডিক্রি করেন তিনি।

সূত্র: বাংলা ট্রিবিউন
আইএ/ ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২

Back to top button