ঢাকা

রাজধানীতে অজ্ঞান পার্টির খপ্পরে ২ ব্যবসায়ী, সর্বস্ব খুইয়ে ঢামেকে ভর্তি

ঢাকা, ২৫ সেপ্টেম্বর – অজ্ঞান পার্টির খপ্পরে পড়ে সর্বস্ব হারানো দুই ব্যবসায়ীকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তারা হচ্ছেন- সাহেব আলী (৪৫) ও আবুল কাশেম (৫০)। সাহেব আলীকে রাজধানীর আজিমপুর এবং আবুল কাশেমকে গুলিস্তান বাসস্ট্যান্ড থেকে অজ্ঞান অবস্থায় উদ্ধার করা হয়।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন ঢামেক হাসপাতাল পুলিশ ফাড়ির ইনচার্জ পরিদর্শক মো. বাচ্চু মিয়া।

তিনি বলেন, ‘পৃথক স্থান থেকে অচেতন অবস্থায় উদ্ধার করে আজ বিকেলে দুজনকে ঢামেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ‘
সাহেব আলী ঢাকার অদুরে কেরানীগঞ্জের কলাতিয়ার ওয়াজেদ আলীর ছেলে। বর্তমানে রাজধানীর চকবাজার এলাকাতে থাকেন। তার ভাই শাহজাহান বলেন, ‘সাহেবকে আজিমপুর বাসস্ট্যান্ড থেকে দুপুর পৌনে ২টার দিকে অচেতন অবস্থায় পাওয়া গিয়েছে। পথচারীদের কাছ থেকে খবর পেয়ে তাকে উদ্ধার করে বিকেলে ঢামেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ‘

তিনি বলেন, ‘উত্তরা মিরপুরসহ কয়েক এলাকার টাকা কালেকশনে বের হয়ে চাকবাজারে ফিরে আসার পথে বাসে অজ্ঞান পার্টির খপ্পরে পড়ে অচেতন হয়ে পড়ে সাহেব আলী। পরে বাসের লোকজন তাকে আজিমপুর বাসস্ট্যান্ডে রেখে যান। ‘

তিনি আরো বলেন, ‘সাহেব একদিন টাকা কালেকশনে বের হলে এক থেকে দেড় লাখ টাকা পেয়ে থাকে। তবে আজ তার কাছে কত টাকা ছিল তা তার জ্ঞান না ফেরা পর্যন্ত সঠিকভাবে বলা যাবে না। ‘

অপরদিকে, একই দিনে পোস্তগোলা এলাকার ‘ফাতেমা এন্টার প্রাইজ’ নামক প্রতিষ্ঠানের ম্যানেজার আবুল কাশেমকে আজ বিকেলে গুলিস্তান দোলন বাস কাউন্টার থেকে সংবাদ পেয়ে অচেতন অবস্থায় উদ্ধার করে ঢামেক হাসপাতালের জরুরী বিভাগে ভর্তি করা হয়েছে। প্রতিষ্ঠানের মালিক এসব তথ্য জানান।

তিনি বলেন, ‘ম্যানেজারের বাড়ি নারায়ণগঞ্জের শম্ভুপুরা। তিনি আসার পথে মেঘনা ঘাটে মিল থেকে টাকা (ট্রাক ভাড়া) নিয়ে আসার কথা কিন্তু তিনি আসার আগেই বাসে অজ্ঞান পার্টির খপ্পরে পড়ে অচেতন হয়ে যান। তার কাছে লক্ষাধিক টাকা থাকার কথা ছিল। কিন্তু তার কাছে কোনো টাকা-পয়সা পাওয়া যায়নি। সর্বস্ব খোওয়া গেছে। বিকেলে তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ‘

সূত্র: কালের কন্ঠ
আইএ/ ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২

Back to top button