জাতীয়

সরকারি-বেসরকারি দপ্তরে বিদ্যুৎ বিল বকেয়ায় ক্ষুব্ধ সংসদীয় কমিটি

ঢাকা, ২০ সেপ্টেম্বর – সরকারি-বেসরকারি দপ্তরের বিদ্যুৎ বিল বকেয়া থাকায় উষ্মা প্রকাশ করেছেন বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটি।

মঙ্গলবার (২০ সেপ্টেম্বর) সংসদ ভবনে অনুষ্ঠিত কমিটির ৩১তম বৈঠক হয়। কমিটি সভাপতি ওয়াসিকা আয়শা খানের সভাপতিত্বে বৈঠকে অংশ নেন সদস্য ও প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ, আবু জাহির, আলী আজগার, আছলাম হোসেন সওদাগর, মোছা. খালেদা খানম ও নার্গিস রহমান।

বৈঠকে সরকারি-বেসরকারি বিভিন্ন দপ্তরের বিদ্যুৎ বিল বকেয়া থাকায় উষ্মা প্রকাশ করে কমিটি। কেন এসব দপ্তর দিনের পর দিন বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ করছে না, তাদের এনার্জি অডিট করে সেই তথ্য বৈঠকে উপস্থাপন করার কথাও বলেছে কমিটি।

এছাড়া নতুন সংযোগ দেওয়ার ক্ষেত্রে বিদ্যুৎসাশ্রয়ী যন্ত্র ও উপকরণের ব্যবহার বিষয়ে কমিটি নির্দেশনা দেয়।

এদিকে, দেশীয় প্রযুক্তি ব্যবহার করে নবায়নযোগ্য জ্বালানির উৎস থেকে বিদ্যুৎ উৎপাদনে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়াসহ দুটি সুপারিশ করেছে সংসদীয় স্থায়ী কমিটি।

অন্য দুটি সুপারিশ হলো- ডিজেলচালিত সেচযন্ত্রের পরিবর্তে সৌরসেচের ব্যবহার বাড়ানো ও বিদ্যুৎ বিতরণ ব্যবস্থায় সিস্টেম লস শূন্যের কোটায় আনতে দ্রুততম সময়ের মধ্যে প্রিপেইড মিটার বসাতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া।

সম্প্রতি বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রীর দেওয়া তথ্যমতে, সরকারি, আধা-সরকারি, বেসরকারি প্রতিষ্ঠান ও সংস্থায় বিদ্যুৎ বিল বকেয়া রয়েছে প্রায় সাড়ে আট হাজার কোটি টাকা। এর মধ্যে বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ও রয়েছে। সবচেয়ে বেশি বকেয়া রয়েছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের, যার পরিমাণ ৩২৩ কোটি ৪০ টাকা। সবচেয়ে কম বকেয়া রয়েছে শিল্প মন্ত্রণালয়ের মাত্র দুই হাজার টাকা।

বিদ্যুৎ বিল বকেয়ার দিক থেকে দ্বিতীয় অবস্থানে মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয়। এ মন্ত্রণালয়ের বকেয়ার পরিমাণ ১৪২ কোটি ৪৮ লাখ টাকা। তৃতীয় অবস্থানে থাকা খাদ্য মন্ত্রণালয়ের বকেয়ো ১২৮ কোটি তিন লাখ ৮৬ হাজার টাকা।

গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয়ে ৭৮ কোটি ১৬ লাখ তিন হাজার টাকা, স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে ৬২ কোটি চার লাখ ৯৬ হাজার, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ে ৪৯ কোটি ২২ লাখ ছয় হাজার টাকা।

প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ে ২৭ কোটি ১১ লাখ ছয় হাজার টাকা, আইন ও বিচার মন্ত্রণালয় ছয় কোটি ৯ লাখ ৯৫ হাজার টাকা, ভূমি মন্ত্রণালয় ১০ কোটি তিন লাখ ৯২ হাজার টাকাসহ ৪০টি মন্ত্রণালয়ের কাছে মোট ৬৪২ কোটি ৯৮ লাখ টাকা বকেয়া রয়েছে।

এছাড়া আধা-সরকারি প্রতিষ্ঠান ও সংস্থার বকেয়া ৭৬৩ কোটি ৯০ লাখ, প্রাইভেট প্রতিষ্ঠানের বকেয়া পাঁচ হাজার ৪৭৬ কোটি ছয় হাজার টাকা

সূত্র: জাগোনিউজ
আইএ/ ২০ সেপ্টেম্বর ২০২২

Back to top button