জানা-অজানা

করোনা মহামারির শেষ দেখছে ডব্লিউএইচও

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (ডব্লিউএইচও) মহাপরিচালক তেদরোস আধানোম গেব্রেয়াসুস সুখবর দিয়েছেন বিশ্ববাসীকে। তিনি বলেছেন, ‘মহামারী করোনাভাইরাসের শেষ দেখা যাচ্ছে’। গতকাল বুধবার তেদরোস আধানোম গেব্রেয়াসুস বলেন, ‘মহামারী শেষ করার অবস্থানে আমরা কখনই ছিলাম না। মহামারী শেষও হয়ে যায়নি। তবে শেষটা সামনে দেখতে পাচ্ছি। ম্যারাথনে ফিনিশ লাইন দেখেই দৌড়বিদ দৌড় থামিয়ে দেন না। ফিনিশ লাইন স্পর্শ করতে তিনি সর্বশক্তি দিয়ে আরও জোরে দৌড়ান। মহামারী করোনাভাইরাসকে হারিয়ে দিতে আমাদেরও তা করতে হবে। আমরা ফিনিশ লাইন দেখছি। আমাদেরই জয়ী হওয়ার সম্ভাবনা বেশি। কিন্তু এখনই হাত গুটিয়ে বসের থাকার সিদ্ধান্ত হবে আত্মঘাতী’।

২০২০ সালের মার্চের পর গত সপ্তাহে বিশ্বে করোনার সবচেয়ে কম সংক্রমণ দেখা গেছে। তবে সংক্রমণ কমার পেছনে পরীক্ষা কমিয়ে দেওয়াটাও ভূমিকা রাখতে পারে বলে সতর্ক করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মহাপরিচালক আরও বলেছেন, ‘এখন করোনাকে হারিয়ে দিতে আমাদের আরও জোরালো পদক্ষেপ নিতে হবে। যাতে আমরা মহামারী শেষ করার লক্ষ্য অর্জন করতে পারি এবং আমাদের সকল কঠোর প্রচেষ্টার সুফল ভোগ করতে পারি। যদি আমরা করোনাকে হারিয়ে দেওয়ার এই সুযোগ না নিই তাহলে আরও বেশি ভ্যারিয়েন্ট, আরও বেশি মৃত্যু, আরও নানা ধরনের সমস্যা ও অনিশ্চয়তার মুখোমুখি হবো। তাই করোনা মহামারী শেষ করার এই সুযোগ আমাদের গ্রহণ করতে হবে’।
২০১৯ সালের শেষ দিকে চীনে প্রথম করোনা শনাক্ত হয়। ২০২০ সালে মহামারি আকারে তা সারা বিশ্বে ছড়িয়ে পড়ে। ব্যাপক হারে টিকাপ্রদানের পর এখন সংক্রমণ ও মৃত্যু অনেকটাই কমে গেছে। তবে এখনো করোনা সংক্রমণ ও মৃত্যু অব্যাহত আছে।

করোনার সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ জনগোষ্ঠীর সব সদস্যকে টিকা দেওয়ার জন্য বিনিয়োগে দেশগুলোর প্রতি আহ্বান জানিয়েছে ডব্লিউএইচও। সংস্থাটি একই সঙ্গে করোনার পরীক্ষা ও জিনোম সিকোয়েন্সিং অব্যাহত রাখার আহ্বান জানিয়েছে।

এম ইউ/১৫ সেপ্টেম্বর ২০২২

Back to top button