কুড়িগ্রাম

ভূরুঙ্গামারীতে ভুয়া কাস্টমস কর্মকর্তা জনতার হাতে আটক

ভূরুঙ্গামারী, ৭ সেপ্টেম্বর – কুড়িগ্রামের ভূরুঙ্গামারীতে ভুয়া কাস্টম কর্মকর্তা পরিচয়ে ভ্যাট আদায়ের নামে চাঁদা নেওয়ার সময় তপন কুমার দাস (৩২) নামের এক ব্যক্তিকে আটক করেছে স্থানীয় জনতা। তিনি উপজেলার জয়মনিরহাট ইউনিয়নের ছোট খাটামারি গ্রামের হৃদয় কুমার দাসের ছেলে। মঙ্গলবার (৬ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় উপজেলার সদর ইউনিয়নের সোনাতলী ঘাটপার বাজার এলাকা থেকে তাকে আটক করা হয়।

জানা গেছে, আটক তপন কুমার নিজেকে জয়মনিরহাট কাস্টমস অফিসের কর্মকর্তা পরিচয়ে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় উপজেলার সদর ইউনিয়নের সোনাতলী ঘাটপাড় বাজারে জনৈক আমিনুর রহমানের টিনের দোকান ও মামুনুর রশিদের দোকানে গিয়ে ভ্যাটের কথা বলে তিন হাজার টাকা চাঁদা দাবি করেন।

তিনি ব্যবসায়ীদের বলেন, এ মাসে দেড় হাজার টাকা দিতে হবে এবং পরের মাস থেকে প্রতি মাসে মাসে তিন হাজার টাকা করে দিতে হবে। না দিলে ভ্যাট ফাঁকির অভিযোগে তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
তপনের কথাবার্তায় সন্দেহ হলে স্থানীয়রা তপনকে আটক করে থানা পুলিশকে খবর দেন। পরে ভূরুঙ্গামারী থানা পুলিশের একটি দল ঘটনাস্থলে গিয়ে তপনকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়।

এ বিষয়ে ভূরুঙ্গামারীর জয়মনিরহাট শুল্ক গুদামের কাস্টমস কর্মকর্তা শহিদুল ইসলাম বলেন, তপন কুমার দাস নামে এই অফিসে কোনো কাস্টমস কর্মকর্তা নেই।

ভূরুঙ্গামারী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আলমগীর হোসেন বলেন, স্থানীয় জনতা তপনকে আটক করে থানা পুলিশকে খবর দেন। আটক তপন যাদের কাছে চাঁদা দাবি করেছেন, তাদের থানায় অভিযোগ করতে বলা হয়েছে। আর যদি কেউ অভিযোগ না করেন, তাহলে নিবর্তনমূলক আইনে আটক ব্যক্তিকে জেলহাজতে পাঠানো হবে।

সূত্র: কালের কন্ঠ
আইএ/ ৭ সেপ্টেম্বর ২০২২

Back to top button