জাতীয়

শেখ হাসিনা সরকারকে ভারত ক্ষমতায় রাখবে কিনা আ.লীগে সংশয় আছে

ঢাকা, ১৯ আগস্ট – বর্তমান সরকারকে ভারত ক্ষমতায় রাখবে কিনা তা নিয়ে আওয়ামী লীগের মধ্যে সংশয় দেখা দিয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়। পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেনের গতকালের বক্তব্য প্রসঙ্গে আজ শুক্রবার জাতীয় প্রেসক্লাবের এক অনুষ্ঠানে তিনি এই মন্তব্য করেন।

গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেন, ‌‘পররাষ্ট্র মন্ত্রীর কথা অনুযায়ী ভারত তাদেরকে রাখবে কিনা এটা নিয়ে সংশয় আছে। যাদের সম্পর্ক স্বামী-স্ত্রীর, সেই সম্পর্ক যদি স্বামী-স্ত্রীর হয় সেখানে তালাকে সম্ভাবনা আছে কিনা। যদি না থাকে তাহলে মোমেন সাহেব এই ধরনের উক্তি কেনো করেন। রাষ্ট্র পরিচালনা করতে গিয়ে তারা রাষ্ট্রের কথা, রাজনীতির কথা, দেশের সম্মানের কথা এতটুকু চিন্তা না করে যে ধরনের উক্তি করেন তাতে আমরা একটা স্বাধীন দেশের নাগরিক দাবি করার অবকাশ নাই।’

বিএনপির এই নেতা বলেন, ‘ঢাকার বাজারে যে কচুর দাম ৮০ টাকা সেটা কিশোরগঞ্জের বাজারে ৩০ টাকা। এভাবে প্রত্যেকটা জিনিসের দাম বাড়ছে। তার পাশাপাশি একটি জিনিসের দাম ক্রমান্বয়ের কমতেছে সেই জিনিসটার নাম আপনারা জানেন কি জানেন না আমি জানি না। আমার মনে হয়, আওয়ামী লীগের দাম প্রতিদিনই কমতেছে।’

দলীয় নেতাকর্মীদের উদ্দেশে তিনি বলেন, ‘এখন আমরা দলের মধ্যে প্রতিযোগিতায় আছি, আগামী নির্বাচনে কীভাবে মনোনয়ন লাভ করবো সেটা নিয়েই আমাদের দুচিন্তা। পাস করা নিয়ে আমাদের দুশ্চিন্তা নেই। সেই কারণেই আন্দোলনের চেয়ে প্রতি এলাকায় প্রার্থীদের নির্বাচনী পরিবেশ তৈরি করছে কিনা এটা আমাদের ভাবতে হবে।’

বিএনপি এই নেতা বলেন, ‘আমার রাজনৈতিক জীবনে যতদিন ধরে আওয়ামী লীগকে চিনি ততদিন ধরে বলি, আওয়ামী লীগ যাহা বলে তাহা করে না, যাহা করে না তাহা বলে না।’

বাংলাদেশ ইয়ুথ ফোরামের উদ্যোগে ‘বিদ্যুত-জ্বালানি সংকটে বাংলাদেশ, নিয়ন্ত্রণহীন দ্রব্যমূল্য’ শীর্ষক এই আলোচনা সভা হয়। সংগঠনের উপদেষ্টা সাঈদ আহমেদ আসলামের সভাপতিত্বে ও সভাপতি মুহাম্মদ সাইদুর রহমানের পরিচালনায় আলোচনা সভায় বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আহমেদ আজম খান, নির্বাহী কমিটির সদস্য আবু নাসের মুহাম্মদ রহমাতুল্লাহ, আনোয়ার হোসেন বুলু, ডক্টরস অ্যাসোসিয়েশনের সহসভাপতি আব্দুস সেলিম, তাঁতী দলের মনিরুজ্জামান মুনির, কৃষক দলের ইসমাইল হোসেন তালুকদারসহ আরও অনেকে উপস্থিত ছিলেন।

সূত্র: আমাদের সময়
এম ইউ/১৯ আগস্ট ২০২২

Back to top button