ফুটবল

ভারতকে নিষিদ্ধ করলো ফিফা

বার্ন, ১৬ আগস্ট – ভারতকে ফুটবল থেকে নিষিদ্ধ করেছে বিশ্ব ফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থা ফিফা। ফুটবলীয় কার্যক্রমে তৃতীয় পক্ষের প্রভাব খাটানোর অভিযোগে ভারতীয় ফুটবলের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থা অল ইন্ডিয়া ফুটবল ফেডারেশন (এআইএফএফ) এই শাস্তির কবলে পড়ে।

মঙ্গলবার (১৬ আগস্ট) এক বিবৃতিতে বিষয়টি নিশ্চিত করে ফিফা।এই নিষেধাজ্ঞার ফলে আগামী অক্টোবরে ভারতে অনুষ্ঠেয় অনূর্ধ্ব-১৭ নারী বিশ্বকাপও আয়োজন করতে পারবে না ভারত। শিগগিরই এই টুর্নামেন্টের ভবিষ্যৎ নিয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে বলে জানিয়েছে ফিফা।

এক বিবৃতিতে সংস্থাটি বলেছে, ব্যুরো অব ফিফা কাউন্সিল সর্বসম্মতভাবে এআইএফএফকে নিষিদ্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। কারণ এই সংস্থায় তৃতীয় পক্ষের অনুচিত প্রভাবের ফলে ফিফা সনদের পরিষ্কার লঙ্ঘন হয়েছে।

কয়েক মাস আগেই এআইএফএফের সংবিধান সংশোধন করে দ্রুত নির্বাচন করার জন্য ৩ সদস্যের কমিটি গড়ে দিয়েছিলেন ভারতের সর্বোচ্চ আদালত। স্বয়ংশাসিত ক্রীড়া সংস্থায় তৃতীয় পক্ষের হস্তক্ষেপ ফিফার আইন বিরুদ্ধ। তাই এই কমিটির হস্তক্ষেপের বিরুদ্ধে কড়া সিদ্ধান্ত নিল ফিফা।

ফিফা এক বিবৃতিতে বলেছে, ‘এখন এআইএফএফ এর ক্ষমতায় রয়েছে কমিটি অব অ্যাডমিনিস্ট্রেটর্স। এর বদলে যেদিন থেকে নির্বাচনের মাধ্যমে তৈরি হওয়া কমিটি এআইএফএফ-এর দৈনন্দিন কাজকর্ম দেখতে শুরু করবে, সেদিন থেকে এই নির্বাসনের শাস্তি উঠে যাবে।’

ভারতীয় গণমাধ্যম বলছে, চলতি মাসের শুরুর দিকে দেশটির সুপ্রিম কোর্ট অবিলম্বে নির্বাচন অনুষ্ঠানের নির্দেশ দিয়েছিলেন। এবং বলেছিল যে নির্বাচিত কমিটি তিন মাসের জন্য একটি অন্তর্বর্তী সংস্থা হবে। ফুটবল ফেডারেশনের ওপর আদালতের এই খরবদারি ভালোভাবে নেয়নি ফিফা। বিশ্ব ফুটবলের সর্বোচ্চ আদালতের খবরদারিকে তাদের সনদের পরিস্কার লঙ্ঘন হিসেবে গণ্য করে।

ফিফার আইন অনুযায়ী, সদস্য ফেডারেশনগুলোকে তাদের নিজ নিজ দেশে আইনি ও রাজনৈতিক হস্তক্ষেপ থেকে মুক্ত থাকতে হবে।

সূত্র: পূর্বপশ্চিম
আইএ/ ১৬ আগস্ট ২০২২

Back to top button