ঢাকা

চাঁদা না দেওয়ায় নবজাতক ছিনিয়ে নেওয়ার হুমকি, চার হিজড়া গ্রেপ্তার

ঢাকা, ১৫ আগস্ট – রাজধানীর উত্তরায় চাঁদা না দেওয়ায় নবজাতককে ছিনিয়ে নেওয়ার হুমকি দেওয়ার অপরাধে দ্রুত বিচার আইনে করা মামলায় গ্রেফতার চার তৃতীয় লিঙ্গের ব্যক্তিকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছেন আদালত। রোববার (১৪ আগস্ট) ঢাকা মেট্রোপলিটন (ডিএমপি) ম্যাজিষ্ট্রেট দেবদাস চন্দ্র অধিকারী এ আদেশ দেন। সোমবার (১৫ আগস্ট) উত্তরা পশ্চিম থানার নিবন্ধন শাখা থেকে এ তথ্য জানা যায়।

মামলার আসামিরা হলেন আলো (২৮), শারমীন (২৩), মিম (৩০) ও রুমা (২৫)।

আদালত সূত্রে জানা যায়, রোববার সকালে উত্তরা পশ্চিম থানার ৯ নম্বর সেক্টর থেকে তৃতীয় লিঙ্গের ওই চার ব্যক্তিকে গ্রেফতার করা হয়। পরে তাদের আদালতে হাজির করে কারাগারে আটক রাখার আবেদন করেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা। ওই আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে বিচারক আসামিদের কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

মামলার এজাহার সুত্রে জানা যায়, গত ৬ আগস্ট উত্তরার ৯ নম্বর সেক্টরের একটি ভবনে এক ভাড়াটিয়ার কন্যাসন্তান হয়। এর মাস দুয়েক আগে একই ভবনের আরেক ভাড়াটিয়ারও কন্যাসন্তান হয়। এরপর রোববার আসামিরা এসে দুই নবজাতকের জন্য ২০ হাজার টাকা চাঁদা দাবি করেন। এ চাঁদাকে তারা ‘নবজাতক পাওনা’ বলে দাবি করেন।

চাঁদা দিতে অপারগতা প্রকাশ করলে আসামিরা নবজাতক নিয়ে যাওয়ার হুমকি দেন। একপর্যায়ে দুই ভাড়াটিয়ার একজন ৩ হাজার টাকা চাঁদা দেন। কিন্তু বাকিজন টাকা না দিলে তার ঘরের দরজায় লাথি মেরে, ঘরের সামনে চিৎকার করে ভীতিকর পরিস্থিতির সৃষ্টি করেন আসামিরা। পরে ভুক্তভোগী পুলিশে খবর দিলে ঘটনাস্থল থেকে চারজনকে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারের পর আসামিদের কাছ থেকে এক পরিবারের কাছ থেকে নেওয়া ৩ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়। পরবতীকালে ওই চার তৃতীয় লিঙ্গের ব্যক্তির বিরুদ্ধে দ্রুত বিচার আইনে মামলা দায়ের করা হয়।

সূত্র: জাগোনিউজ
আইএ/ ১৫ আগস্ট ২০২২

Back to top button