উত্তর আমেরিকা

যুদ্ধের দ্বারপ্রান্তে রাশিয়া-যুক্তরাষ্ট্র

 

ওয়াশিংটন, ১৪ আগস্ট – যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী হেনরি কিসিঞ্জার বলেছেন, ‘রাশিয়া এবং চীনের সঙ্গে যুদ্ধের দ্বারপ্রান্তে রয়েছে আমেরিকা।’ ইউক্রেন এবং তাইওয়ানকে কেন্দ্র করে ভয়াবহ এই যুদ্ধের আশঙ্কার কথা জানিয়েছেন তিনি। গতকাল শনিবার মার্কিন দৈনিক ওয়াল স্ট্রিট জার্নালকে এসব কথা বলেন সাবেক এই কূটনীতিবিদ।

কিসিঞ্জার বলেন, স্বপ্নদ্রষ্টা নেতার অভাবে যুদ্ধের আশঙ্কা তীব্রতর হয়েছে। পশ্চিমাদের উচিত ছিল রাশিয়ার প্রেসিডেন্টের নিরাপত্তার দাবিগুলো বিবেচনায় নেওয়া। এর আগে তিনি কিছু ভূমি পরিত্যাগ করে কিয়েভকে রাশিয়ার সঙ্গে চলমান যুদ্ধের অবসান ঘটানোর পরামর্শ দিয়েছিলেন।

তিনি বলেন, ‘আমরা রাশিয়া এবং চীনের সঙ্গে যুদ্ধের দ্বারপ্রান্তে রয়েছি। এই সমস্যার অংশবিশেষ আমরা নিজেরাই তৈরি করেছি। অথচ কীভাবে এর সমাধান হতে পারে বা এই সমস্যা তৈরি করলে তা কোথায় যেতে পারে সে বিষয়ে আমাদের ধারণা নেই।’

৯৯ বছর বয়সী হেনরি কিসিঞ্জার সম্প্রতি একটি বই লিখেছেন। বইটিতে দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ পরবর্তী গুরুত্বপূর্ণ নেতাদের জীবনী উঠে এসেছে।

বইয়ে তিনি বলেছেন, ‘গত ফেব্রুয়ারি মাসে রাশিয়া ইউক্রেনে যে বিশেষ সেনা অভিযান শুরু করেছে তা নিজের নিরাপত্তার উদ্বেগ থেকেই করেছে। কারণ ইউক্রেন যদি ন্যাটো জোটে যোগ দেয় তাহলে মস্কো থেকে মাত্র ৩০০ মাইল দূরে সামরিক জোটের অস্ত্র মোতায়ন হবে। এখন পরিস্থিতি যা দাঁড়িয়েছে তাতে পুরো ইউক্রেনের কর্তৃত্ব রাশিয়ার অধীনে চলে যেতে পারে।

সূত্র: আমাদের সময়
এম ইউ/১৪ আগস্ট ২০২২

Back to top button