জাতীয়

‘নারীর ক্ষমতায়ন, সমঅধিকার প্রতিষ্ঠায় নানা পদক্ষেপ নিয়েছে সরকার’

ঢাকা, ১০ আগস্ট – প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে নারী উন্নয়ন ও নারীর ক্ষমতায়নে বাংলাদেশ রোল মডেলে পরিণত হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা। তিনি বলেছেন, জাতির পিতা শেখ মুজিবুর রহমান ১৯৭২ সালে সংবিধানে নারীর সমঅধিকার নিশ্চিত করেন। এর ধারাবাহিকতায় তার সুযোগ্য কন্যা শেখ হাসিনা নারী উন্নয়ন, ক্ষমতায়ন, নারীর সমঅধিকার প্রতিষ্ঠা ও কর্মসংস্থান সৃষ্টির জন্য বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করেছেন।

আজ বুধবার বাংলাদেশ সচিবালয়ে প্রতিমন্ত্রীর কার্যালয়ে তার সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন ইউনাইটেড ন্যাশনস পপুলেশন ফান্ডের (ইউএনএফপিএ) বাংলাদেশে নিযুক্ত প্রতিনিধি ক্রিস্টিন ব্লকউজ। সাক্ষাৎকালে প্রতিমন্ত্রী এ কথা বলেন। এ সময় তারা বাংলাদেশে নারীর উন্নয়ন, ক্ষমতায়ন, বাল্য বিয়ে ও নারীর প্রতি সহিংসতা প্রতিরোধসহ বিভিন্ন বিষয়ে তারা আলোচনা করেন।

প্রতিমন্ত্রী ইন্দিরা বলেন, জাতিসংঘের ৭৫ তম অধিবেশনে প্রধানমন্ত্রী ২০৪১ সাল নাগাদ কর্মস্থলে নারীর অংশগ্রহণ পুরুষের সমান করার অঙ্গীকার করেছেন। মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয় এই অঙ্গীকার বাস্তবায়নে কাজ করে যাচ্ছে।

তিনি বলেন, জাতিসংঘ এবং এর এজেন্সি ইউনিসেফ, ইউএনএফপিএ, ইউএন উইমেন ও ইউএনএফপির আর্থিক ও কারিগরি সহায়তায় মন্ত্রণালয় বিভিন্ন প্রকল্প বাস্তবায়ন করছে। সামনে নারীর ক্ষমতায়ন ও উন্নয়নে একসাথে আরও কাজ করার আহ্বান জানান তিনি।

এ সময় ক্রিস্টিন ব্লকউজ বলেন, ইউএনএফপিএ বাংলাদেশে ক্ষমতায়ন ও আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে কাজ করে যাচ্ছে। ইতোমধ্যে দুটি প্রকল্প সমাপ্ত হয়েছে এবং কয়েকটি প্রকল্পের বাস্তবায়ন কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

সাক্ষাৎকালে মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব ড. মহিউদ্দীন আহমেদ, মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের মহাপরিচালক ফরিদা পারভীন ও যুগ্মসচিব নার্গিস খানম উপস্থিত ছিলেন।

সূত্র: সমকাল
আইএ/ ১০ আগস্ট ২০২২

Back to top button