দক্ষিণ এশিয়া

মহিলাকে হেনস্তার অভিযোগ, নয়ডায় বুলডোজার দিয়ে গুড়িয়ে ফেলা হল ‘বিজেপি নেতা’র নির্মাণ

লক্ষ্ণৌ, ০৯ আগস্ট – প্রকাশ্যে একজন নারীকে মারধরের ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে। ভারতের উত্তর প্রদেশের বিজেপি নেতা শ্রীকান্ত ত্যাগীর চরম শাস্তির দাবিতে সরব হয়েছেন নেটিজেনরা।

উত্তর প্রদেশের নয়ডার একটি সোসাইটিতে এক নারীর সঙ্গে প্রথমে বাগবিতণ্ডায় জড়ান ওই বিজেপি নেতা। কথা-কাটাকাটির একপর্যায়ে ওই নারীর ওপর শ্রীকান্ত ত্যাগী হাত ওঠান।

এখানেই শেষ নয়, ওই নারীর চরিত্র নিয়েও প্রশ্ন তোলার অভিযোগ রয়েছে তার বিরুদ্ধে।
সোশ্যাল মিডিয়ায় বিজেপি নেতার কীর্তি ভাইরাল হতেই ক্ষুব্ধ নেটিজেনরা। এরই মধ্যে তার বিরুদ্ধে একাধিক অভিযোগও দায়ের হয়েছে।

প্রকাশ্যে এসেছে অভিযুক্ত বিজেপি নেতার আরো কীর্তি। ভারতের গণমাধ্যমগুলো জানিয়েছে, লখনউর গোমতীনগরে অন্য এক নারীর সঙ্গে শ্রীকান্তকে হাতেনাতে ধরেছিলেন তার স্ত্রী। সেখানে একটি ভাড়া ফ্ল্যাটে ঘনিষ্ঠ অবস্থায় তাদের দেখা গিয়েছিল।

তার স্ত্রীর অভিযোগ ছিল, বহুদিন ধরেই ওই নারীর সঙ্গে সম্পর্কে ছিলেন বিবাহিত বিজেপি নেতা। এমনকি দুই নারীই পরস্পরের বিরুদ্ধে স্বামী হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ করেছিলেন। পরস্পরের বিরুদ্ধে পুলিশে অভিযোগও দায়ের করেছিলেন তারা।

২০২০ সালের ওই ঘটনায় ত্যাগীর স্ত্রী অভিযুক্ত নারীর বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩৫২, ৩২৩, ৫০৪, ৫০৬ এবং ৪০৭ ধারায় অভিযোগ করেছিলেন। নারীর বিরুদ্ধে মারধর এবং প্রাণে মেরে ফেলার হুমকির অভিযোগ করেছিলেন বিজেপি নেতার স্ত্রী। এবারের ঘটনা সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়ায় মহাফাঁপরে পড়েছেন শ্রীকান্ত ত্যাগী।

এরই মধ্যে অন্যান্য বিজেপি নেতাও তার থেকে দূরত্ব তৈরি করতে শুরু করেছেন। অনেকে বলছেন, শ্রীকান্ত ত্যাগী কোনো দিন বিজেপির সদস্যই ছিলেন না।

পুলিশ জানিয়েছে, ত্যাগীর তিনটি গাড়ি জব্দ করা হয়েছে। পলাতক নেতার খোঁজে নেমে চারজনকে আটক করেছে পুলিশ।

স্থানীয় সময় সোমবার সকাল থেকেই অবশ্য ধুন্ধুমার অবস্থা নয়ডায়। শ্রীকান্ত ত্যাগীর খোঁজ পেতে ২৫ হাজার রুপি পুরস্কার ঘোষণা করা হয়েছে। কাল সকালে অভিযুক্ত শ্রীকান্তের বাড়িতে চলেছে বুলডোজার অভিযান। নিজেকে বিজেপি নেতা বলে দাবি করা এই নেতার বাড়ির অবৈধ নির্মাণের অংশ বুলডোজার দিয়ে গুঁড়িয়ে দেয় নয়ডা অথরিটি। তার আইনজীবী এরই মধ্যে তার আত্মসমর্পণের প্রস্তাব আদালতকে দিয়ে দিয়েছেন।

তবে এরই মধ্যে শ্রীকান্তকে আটক করেছে পুলিশ। মুখ্যমন্ত্রী যোগি আদিত্যনাথ পদক্ষেপ নিতে বলার পর পুলিশ তাকে আটক করে।

সূত্র: কালের কণ্ঠ
এম ইউ/০৯ আগস্ট ২০২২

Back to top button