এশিয়া

পেলোসিকে ‌‘আন্তর্জাতিক শান্তি বিনষ্টকারী’ বলে মন্তব্য উত্তর কোরিয়ার

পিয়ংইয়ং, ০৬ আগস্ট – ডিএমজেড নামে পরিচিত দুই কোরিয়ার সীমান্তবর্তী কঠোর নিরাপত্তাবেষ্টিত বেসামরিক অঞ্চলে মার্কিন প্রতিনিধি পরিষদের স্পিকার ন্যানসি পেলোসির সফরের তীব্র নিন্দা জানিয়েছে উত্তর কোরিয়া।

মার্কিন শীর্ষস্থানীয় এই মার্কিন কর্মকর্তাকে ‘আন্তর্জাতিক শান্তি ও স্থিতিশীলতার নিকৃষ্টতম ধ্বংসকারী’ হিসেবে অভিহিত করেছে উত্তর কোরিয়া।

ন্যানসি পেলোসি তাইওয়ান সফরের আগে দক্ষিণ কোরিয়া সফরে যান এবং সিউল থেকে দুই কোরিয়ার সীমান্তবর্তী পানমুনজম গ্রাম পরিদর্শন করেন। এই গ্রামে ২০১৯ সালে তৎকালীন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং ‍উনের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছিলেন। তারপর এই প্রথম কোনো শীর্ষস্থানীয় মার্কিন কর্মকর্তা ডিএমজেড অঞ্চলে অবস্থিত পানমুনজম গ্রাম সফর করলেন।
তবে যৌথ নিরাপত্তাবেষ্টিত ওই অঞ্চল সফরে গেলে দুই কোরিয়াকেই জানানোর নিয়ম থাকলেও তা লঙ্ঘন করে পেলোসি সেখানে সফর করেন।

উত্তর কোরিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র কর্মকর্তা জে ইয়ং স্যাম বলেছেন, পিয়ংইয়ংয়ের প্রতি শত্রুতা জাহির করতে পেলোসি যৌথ নিরাপত্তা অঞ্চল পানমুনজম পরিদর্শন করেছেন। তিনি তাইওয়ানে গিয়ে চীনা জনগণকে ক্ষেপিয়ে তুলেছেন।

স্যাম আরো বলেন, পেলোসি এসব সফরের মাধ্যমে যে গোলযোগ সৃষ্টি করে গেলেন সেজন্য আমেরিকাকে চড়া মূল্য দিতে হবে।

এর আগে গত বৃহস্পতিবার উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং-উন বলেছেন, ভবিষ্যতে ওয়াশিংটন ও সিউলের সঙ্গে যেকোনো সামরিক সংঘাতে তিনি পরমাণু অস্ত্র মোতায়েন করবেন। আমেরিকা ও দক্ষিণ কোরিয়া সম্প্রতি উদ্বেগ প্রকাশ করে বলেছে, উত্তর কোরিয়া সম্ভবত পাঁচ বছরের মধ্যে প্রথম পরমাণু অস্ত্রের পরীক্ষা চালাতে যাচ্ছে।

সূত্র: বিডি প্রতিদিন
এম ইউ/০৬ আগস্ট ২০২২

Back to top button