বলিউড

শাহরুখের ২০০ কোটির ‘মান্নাত’-এর মালিক হতে পারতেন সালমান, কিন্তু

মুম্বাই, ৪ আগস্ট – বলিউড বাদশাহ শাহরুখ খানের বিলাসবহুল বাংলো ‘মান্নাত’ নিয়ে চর্চা বরাবরের। তবে একথা অনেকেই জানেন না বহুমূল্যের দৃষ্টিনন্দন এই বাড়িটির মালিক হতে পারতেন আরেক সুপারস্টার এবং শাহরুখের ঘনিষ্ঠ বন্ধু সালমান খান।

কিন্তু কীভাবে? সেটি হলো, শাহরুখের আগে সালমানের কাছেই গিয়েছিল বাড়িটি কেনার প্রস্তাব। কিন্তু তিনি রাজি হননি। একটি সাক্ষাৎকারে এ কথা সালমানই জানিয়েছিলেন।

অভিনেতাকে প্রশ্ন করা হয়েছিল, শাহরুখের কী আছে, যা তার থাকলে খুশি হতেন। সালমানের জবাব ছিল, ‘ওর ওই বাংলোটা (মান্নাত)। তবে ওটার অফার আমার কাছে আগে এসেছিল। তখন সবে শুরু করেছি। কিন্তু বাবা বলল, এত বড় বাড়িতে তুমি কী করবে। আমিও শাহরুখকে প্রশ্ন করতে চাই, এত বড় বাড়িতে কী করিস তুই?’

মুম্বাইয়ের বান্দ্রার এই সাগরমুখী বাংলোতে থাকেন শাহরুখ খান, গৌরী খান ও তাদের তিন সন্তান সুহানা, আরিয়ান ও আব্রাহাম। ৬ তলা এই বাংলো ডিজাইন করেছেন গৌরী নিজে। বিলাসবহুল নানা সুবিধা যেমন এতে আছে, তেমনই আছে নজরকাড়া আর্টসের কালেকশন।

বর্তমানে শাহরুখ খানের বাংলোর বাজারমূল্য ২০০ কোটি। যখন ‘ইয়েস বস’-এর শুটিং করছিলেন শাহরুখ, তখনই প্রথমবার ‘মান্নাত’ দর্শন হয় তার। প্রথম দেখাতেই প্রেম। সেদিনই মনে মনে তিনি ঠিক করে ফেলেন, একদিন এই বাংলোটি নিজের জন্য কিনবেন।

সে সময় ওই বাংলোর মালিক ছিলেন একজন গুজরাটি। নাম ছিল নারিমান দুবাস। আর ‘মান্নাত’-এর পরিচয় ছিল ‘ভিলা ভিয়েনা’ হিসেবে। বাংলোটি কেনার পরের ৪ বছর সম্ভবত আইনি জটিলতার কারণে নাম পাল্টাতে পারেননি শাহরুখ। শেষ পর্যন্ত ২০০৫ সালে কাগজপত্রে সইসাবুদ করে পাকাপাকিভাবে নাম বদলে করেন ‘মান্নাত’।

আইএ/ ৪ আগস্ট

Back to top button