নাটক

আম্মার রান্না গরুর কলিজা ভীষণ প্রিয়: সজল

ঢাকা, ১৩ জুলাই – ঈদের ছুটি কাটিয়ে এখনও কাজে ফেরেননি অনেকেই। ফলে নাট্যপাড়া এখনও জমে ওঠেনি। বছরে দুই ঈদেই সাধারণত অবসর পান শোবিজ অঙ্গনের তারকারা। এ সময় তারা ঈদের আনন্দ ভাগ করে নেন পরিবারের সঙ্গে।

কোরবানির ঈদে ভোজনরসিক তারকারা ডায়েট ভুলে যান। মায়ের হাতের রান্না সন্তানের কাছে প্রিয়। অভিনেতা আব্দুন নূর সজল মায়ের হাতের প্রিয় খাবারের কথা জানিয়েছেন।

প্রতিবেদকের সঙ্গে আলাপকালে সজল বলেন, ‘মায়ের হাতের সব রান্নাই আমার কাছে অমৃত। সেটা যদি এক পদের ভর্তাও হয় সেটিও অমৃতের মতো লাগে। তবে ঈদের সময়ে মিষ্টি খাবারের বিষয়ে আমার আলাদা একটা ভালো লাগা রয়েছে। ঈদের নামাজ পড়ে আসার পর জর্দা-সেমাই, পায়েস না পেলে মন খারাপ হয়ে যায়। ঈদে এই তিন পদের খাবার চাই-ই চাই। আর কোরবানি শেষে দুপুরে আম্মা গরুর কলিজা রান্না করেন, এটিও আমার ভীষণ প্রিয়।’

মায়ের হাতের রান্না এত প্রিয় কেন? এই প্রশ্নের জবাবে সজল বলেন—‘আমি ঠিক জানি না। এর কারণ ব্যাখ্যা করা সত্যি খুব কঠিন। তবে সন্তানের প্রতি মায়ের ভালোবাসা, আদর একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। এই আদর ভালোবাসারই বহিঃপ্রকাশ ঘটে রান্নার ক্ষেত্রেও। এ জন্য মা যা রান্না করেন সেটাই খুব সুস্বাদু হয়।’

‘আমরা তিন ভাই-বোন। সবার খাবারের রুচি যে এক নয়। একেক জনের একেক রকম পছন্দ। স্বাভাবিকভাবে সব ভাই-বোনের জন্য আলাদা আলাদা পদের খাবার রান্না করতে হয়। এজন্য ঈদের আগের রাতে আম্মা সব প্রস্তুতি নিয়ে রাখেন।’ বলেন সজল।

ঈদুল আজহা ঢাকায় পরিবারের সঙ্গে উদযাপন করছেন সজল। তার অভিনীত বেশ কিছু নাটক-টেলিফিল্ম এবারের ঈদে বিভিন্ন টিভি চ্যানেলে প্রচার হবে। এ তালিকায় রয়েছে—‘আদব বেয়াদব’, ‘বন্ধু বলে কিছু নেই’, ‘যে গল্প বলা হয়নি’ প্রভৃতি।

এম এস, ১৩ জুলাই

Back to top button