জানা-অজানা

শনাক্ত বেশি ফ্রান্সে, মৃত্যুতে জার্মানিকে টপকে শীর্ষে ব্রাজিল

বিশ্বে মহামারি করোনাভাইরাসে গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ও শনাক্ত দুটোই বেড়েছে। এসময়ে সবচেয়ে বেশি সংক্রমিত হয়েছে ফ্রান্সে। দৈনিক মৃত্যুর তালিকায় শীর্ষে উঠে এসেছে ব্রাজিল। মৃত্যুর এ তালিকায় এরপরই রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র, ইতালি, ফ্রান্স, তাইওয়ান ও অস্ট্রেলিয়ার মতো দেশগুলো।

একদিনে বিশ্বে সংক্রমিত হয়ে মারা গেছেন ১ হাজার ৪২৭ জন। আগের দিনের তুলনায় মৃত্যু বেড়েছে প্রায় তিনশো। এতে মহামারি শুরুর পর মৃত্যু বেড়ে পৌঁছেছে ৬৩ লাখ ৭৬ হাজার ৪৩৬ জনে। এসময়ে ৮ লাখ ২২ হাজার ৭৯৯ জন শনাক্ত হওয়ায় আগের দিনের তুলনায় এ সংখ্যা আড়াই লাখের বেশি বেড়েছে। মোট রোগীর শনাক্তের সংখ্যা হয়েছে ৫৬ কোটি ২৬ লাখ ৯৭ হাজার ৫৩ জন। দৈনিক সংক্রমণ ও মৃত্যুতে শীর্ষে ছিল জার্মানি।

বুধবার (১৩ জুলাই) সকালে আন্তর্জাতিক পরিসংখ্যানবিষয়ক ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডোমিটারস থেকে এসব তথ্য জানা গেছে।

ফ্রান্সে গত ২৪ ঘণ্টায় সংক্রমিত হয়েছেন ১ লাখ ৮২ হাজার ৬ জন এবং মারা গেছেন ১২৬ জন। দেশটিতে এখন পর্যন্ত ৩ কোটি ২৫ লাখ ৪৮ হাজার ৯৪৭ জন শনাক্ত এবং ১ লাখ ৫০ হাজার ৩০৫ জন মারা গেছেন।

দৈনিক প্রাণহানির তালিকায় জার্মানিকে টপকে শীর্ষে উঠে আসা ব্রাজিলে গত ২৪ ঘণ্টায় মারা গেছেন ৩৫২ জন এবং নতুন করে সংক্রমিত হয়েছেন ৬৪ হাজার ৭৭১ জন। দেশটিতে এ পর্যন্ত মোট শনাক্ত ৩ কোটি ৩০ লাখ ৫ হাজার ২৭৮ জন এবং মারা গেছে ৬ লাখ ৭৪ হাজার ১৬৬ জন।

যুক্তরাষ্ট্রে গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৯৩ হাজার ১৫১ জন এবং মারা গেছেন ২৫১ জন। করোনায় সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত এ দেশটিতে এখন পর্যন্ত ৯ কোটি ৬ লাখ ৮১ হাজার ৩২ জন শনাক্ত এবং মারা গেছেন ১০ লাখ ৪৬ হাজার ৬১০ জন।

একদিনে ইতালিতে শনাক্ত আরও ১ লাখ ৪২ হাজার ৯৬৭ জন এবং মারা গেছেন ১৫৭ জন। করোনা মহামারির শুরু থেকে ইউরোপের এই দেশটিতে এখন পর্যন্ত ১ কোটি ৯৬ লাখ ৬৭ হাজার ৩২০ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন এবং ১ লাখ ৬৯ হাজার ৩৯০ জন মারা গেছেন। এসময়ে কানাডায় নতুন করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ১২ হাজার ৮১ জন এবং মারা গেছেন ২৮ জন।

গত ২৪ ঘণ্টায় তাইওয়ানে মারা গেছেন ৬০ জন এবং নতুন করে ভাইরাসে সংক্রমিত হয়েছেন ৩১ হাজার ২৯৭ জন। এ পর্যন্ত দেশটিতে মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ৪১ লাখ ৩২ হাজার ৪২৯ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ৭ হাজার ৭৮০ জনের। একইসময়ে জাপানে নতুন করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৪৬ হাজার ৩৩ জন এবং মারা গেছেন ১৯ জন।

একদিনে রাশিয়ায় শনাক্ত আরও ৪৮ জন এবং সংক্রমিত হয়েছেন ৩ হাজার ২ জন। এছাড়া মহামারির শুরু থেকে এ পর্যন্ত দেশটিতে মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ১ কোটি ৮৪ লাখ ৬৮ হাজার ৩১০ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ৩ লাখ ৮১ হাজার ৬৬৯ জনের। একইসময়ে স্পেনে নতুন করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ১৪ হাজার ৮০৫ জন এবং মারা গেছেন ৫৩ জন।

অস্ট্রেলিয়ায় ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৪১ হাজার ২৫৯ জন এবং মারা গেছেন ৫৮ জন। একইসময়ে থাইল্যান্ডে নতুন করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ১ হাজার ৬৭৯ জন এবং মারা গেছেন ২৩ জন। চিলিতে নতুন করে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৪ হাজার ৫৭৩ জন এবং মারা গেছেন ১৮ জন।

এম ইউ/১৩ জুলাই ২০২২

Back to top button