ইউরোপ

রাশিয়ার গ্যাস সরবরাহ বন্ধের সিদ্ধান্ত স্থায়ী হতে পারে

বার্লিন, ১১ জুলাই – বাল্টিক সাগরতলের পাইপলাইন নর্ড স্ট্রিম ১-এর মাধ্যমে জার্মানিতে রাশিয়ার প্রাকৃতিক গ্যাস সরবরাহ বার্ষিক রক্ষণাবেক্ষণ কাজ করতে ১০ দিনের জন্য বন্ধ করা হয়েছে। তবে জার্মান অর্থমন্ত্রী রবার্ট হ্যাবেক সতর্ক করে দিয়ে বলেছেন, এটি স্থায়ী হতে পারে। গ্যাসের চালান আবার শুরু না হওয়ার জন্য ইইউ দেশগুলোকে প্রস্তুত থাকতে হবে।

রবার্ট হ্যাবেক ক্রেমলিনের বিরুদ্ধে ইউক্রেনের যুদ্ধে ইইউ নিষেধাজ্ঞার প্রতিক্রিয়ায় গ্যাস সরবরাহকে ‘অস্ত্র হিসেবে’ ব্যবহার করার অভিযোগ করেন।

হ্যাবেক স্বীকার করেন, জার্মানি রাশিয়ার গ্যাসের ওপর খুব বেশি নির্ভরশীল হয়ে পড়েছে। তবে তিনি বলেন, তরলীকৃত প্রাকৃতিক গ্যাস (এলএনজি) সরবরাহের জন্য দুটি ভাসমান টার্মিনাল বছরের শেষ নাগাদ প্রস্তুত হয়ে যাবে।
গ্রীষ্মে পাইপলাইন সংস্কার একটি স্বাভাবিক বিষয়। তবে ইউক্রেন যুদ্ধ নিয়ে বিরোধের জেরে রাশিয়া আবার গ্যাস সরবরাহ চালু না করতে পারে বলে আশঙ্কা রয়েছে।

জুনের মাঝামাঝি রাশিয়ার রাষ্ট্রীয় গ্যাস উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠান গ্যাজপ্রম নর্ড স্ট্রিম-১ পাইপলাইনে গ্যাস প্রবাহ কমিয়ে ধারণক্ষমতার মাত্র ৪০%-এ নামিয়ে আনে। রাশিয়া বলেছিল, জার্মানির সিমেন্স এনার্জি সার্ভিসিং করা যন্ত্রপাতি ফেরত দিতে দেরি করাই এর কারণ।

কানাডিয়ান সরকার বলেছে, তারা পাইপলাইনের জন্য জার্মানিতে মেরামত করা সিমেন্স টারবাইন ফেরত দেবে। এই পদক্ষেপটি ইউক্রেনের সরকারকে ক্ষুব্ধ করেছে। তারা বলছে, কানাডা মস্কোর ওপর আরোপিত নিষেধাজ্ঞা ভেঙে তা করছে।

সূত্র: কালের কণ্ঠ
এম ইউ/১১ জুলাই ২০২২

 

Back to top button