ক্রিকেট

চতুর্থ দিনেই অস্ট্রেলিয়াকে ইনিংস ব্যবধানে হারালো শ্রীলঙ্কা

কলম্বো, ১১ জুলাই – প্রথম টেস্টে অস্ট্রেলিয়ার কাছে ১০ উইকেটে হেরেছিল শ্রীলঙ্কা। দ্বিতীয় টেস্টের আগে করোনার ধাক্কায় নাস্তানাবুদ হয় তারা। তারপরও অস্ট্রেলিয়াকে দ্বিতীয় টেস্টের চতুর্থ দিনেই ইনিংস ব্যবধানে হারিয়েছে লঙ্কানরা।

অস্ট্রেলিয়া আগে ব্যাট করে প্রথম ইনিংসে ৩৬৪ রান সংগ্রহ করে। জবাবে দিনেশ চান্দিমালের ডাবল সেঞ্চুরিতে প্রথম ইনিংসে ৫৫৪ রান সংগ্রহ করে স্বাগতিকরা। ১৯০ রানে পিছিয়ে থেকে দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নামে অজিরা। কিন্তু প্রভাত জয়সুরিয়ার ঘূর্ণিতে ১৫১ রানে অলআউট হয়ে যায় তারা। তাতে ইনিংসে ও ৩৯ রানে জয় পায় শ্রীলঙ্কা।

প্রথম ইনিংসের পর দ্বিতীয় ইনিংসেও ৬ উইকেট নিয়েছেন অভিষিক্ত জয়সুরিয়া। ম্যাচসেরা হয়েছেন তিনি। সিরিজ সেরা হয়েছেন ডাবল সেঞ্চুরিয়ান চান্দিমাল।

দ্বিতীয় ইনিংসে শ্রীলঙ্কার বোলারদের তোপের মুখে অস্ট্রেলিয়ার ব্যাটসম্যানরা দাঁড়াতেই পারেননি। আগের ইনিংসের সেঞ্চুরিয়ান মার্নাস ল্যাবুশেন সর্বোচ্চ ৩২ রান করেন। এছাড়া উসমান খাজা ২৯, ডেভিড ওয়ার্নার ২৪ ও ক্যামেরন গ্রিন ২৩ রান করেন।

প্রভাত জয়সুরিয়া ৬টি, মাহিশ থিকসানা ও রামেশ মেন্ডিস ২টি করে উইকেট নেন।

তার আগে ৬ উইকেট হারিয়ে ৪৩১ রান নিয়ে চতুর্থ দিন শুরু করে শ্রীলঙ্কা। ১১৮ রান নিয়ে আগের দিনে অপরাজিত ব্যাটসম্যান চান্দিমাল আজ ২৮১ বল খেলে ১২টি চার ও ১ ছক্কায় ১৫০ পূর্ণ করেন। এরপর মিচেল স্টার্কের করা ১৭৯তম ওভারে প্রথম তিন বলে ৪, ৬, ৬ হাঁকিয়ে ১৮৫ থেকে ২০১ রানে পৌঁছান ৩১৬ বলে। একের পর এক সঙ্গী হারালেও শেষ পর্যন্ত তিনি অপরাজিত থাকেন ২০৬ রানে। যা অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে কোনো লঙ্কান ক্রিকেটারের ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ রানের ইনিংস।

চান্দিমালের অনবদ্য ইনিংসে ভর করে শ্রীলঙ্কা ১৮১ ওভারে সবকটি উইকেট হারিয়ে ৫৫৪ রান তোলে। যা অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে তাদের সর্বোচ্চ দলীয় সংগ্রহ। এর আগে ১৯৯২ সালে শ্রীলঙ্কা অজিদের বিপক্ষে ৮ উইকেট হারিয়ে ৫৪৭ রান তুলে ইনিংস ঘোষণা করেছিল।

৫৫৪ রান করে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে শ্রীলঙ্কা লিড নেয় ১৯০ রানের। এই রানে পিছিয়ে থেকে দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে অজিরা অলআউট হয়ে যায় ১৫১ রানে।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:
অস্ট্রেলিয়া:
প্রথম ইনিংস— ৩৬৪/১০ (স্মিথ ১৪৫, ল্যাবুশেন ১০৪; জয়সুরিয়া ৬/১১৮)।
দ্বিতীয় ইনিংস— ১৫১/১০ (ল্যাবুশেন ৩২, খাজা ২৯; জয়সুরিয়া ৬/৫৯)।

শ্রীলঙ্কা:
প্রথম ইনিংস— ৫৫৪/১০ (চান্দিমাল ২০৬, দিমুথ ৮৬, কুশাল ৮৫; স্টার্ক ৪/৮৯ ও সোয়েপসন ৩/১০৩)।
ফল: শ্রীলঙ্কা ইনিংস ও ৩৯ রানে জয়ী
ম্যাচসেরা: প্রভাত জয়সুরিয়া
সিরিজ সেরা: দিনেশ চান্দিমাল।
সিরিজ: ১-১ এ সমতা।

সূত্র : রাইজিংবিডি
এম এস, ১১ জুলাই

Back to top button