জাতীয়

নিজস্ব গ্যাস ছাড়া বিদ্যুৎকেন্দ্র চালু রাখা কষ্টকর ব্যাপার হয়ে গেছে

ঢাকা, ০৬ জুলাই – প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ‘আমরা ডিজিটাল বাংলাদেশ করেছি, বিদ্যুৎ উৎপাদন বাড়িয়েছি। বাংলাদেশের প্রত্যেকটি ঘরে বিদ্যুৎ দিতে সক্ষম হয়েছি। ইউক্রেনের যুদ্ধ, এরপর রাশিয়ার ওপর আমেরিকা নিষেধাজ্ঞা দিল, ইউরোপ নিষেধাজ্ঞা দিল। এর ফলাফলটা এই দাঁড়িয়েছে; তেলের দাম বেড়ে যাচ্ছে, ডিজেলের দাম বেড়ে যাচ্ছে। প্রত্যেকটা জিনিসের দাম বেড়ে যাচ্ছে। এলএনজির দাম বেড়ে যাচ্ছে। আমাদের নিজস্ব যেটুকু গ্যাস আছে তাছাড়া বিদ্যুৎকেন্দ্র চালু রাখা কষ্টকর ব্যাপার হয়ে গেছে, অত্যন্ত ব্যয়বহুল হয়ে গেছে।’

আজ বুধবার ভিডিও কনফারেন্সিং মাধ্যমে চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের শেখ কামাল আইটি বিজনেস ইনকিউবেটর এবং শেখ জামাল ডরমেটরি ও রোজী জামাল ডরমেটরির শুভ উদ্বোধন অনুষ্ঠানে সংযুক্ত হয়ে প্রধানমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

তিনি আরও বলেন, ‘যতটুকু পারা যায় বিদ্যুৎ সাশ্রয় করতে হবে। বিদ্যুতের ব্যবহার কমাতে হবে। আমি নির্দেশ দিয়েছি, প্রত্যেক এলাকা ভিত্তিক কখন কোন এলাকায় কত ঘণ্টা লোডশেডিং হবে এটার একটা রুটিন তৈরি করে সেভাবে লোডশেডিং দেওয়া। যাতে মানুষ সেসময়টা প্রস্তুত থাকতে পারে। মানুষের কষ্টটা যেন আমরা লাঘব করতে পারি। সে বিষয়ে নজর দিতে হবে। আশা করি, দেশবাসী আমাদের এ ব্যাপারে সহযোগিতা করবেন।’
তিনি আরও বলেন, ‘বর্তমানে যুদ্ধ, আমেরিকার নিষেধাজ্ঞা নাভিশ্বাস তুলে ফেলেছে সারা বিশ্বে। আমেরিকার মানুষও কষ্ট পাচ্ছে। কিন্তু ওরা তো মানুষের জন্য অত কেয়ার করে না; আমাদের মতো। তারা মনে করে, মানুষ মানুষের মতো করে খাবে। আমরা তা না। আমরা আমাদের দেশের মানুষ কেমন থাকে, মানুষের দিকেই আমরা দৃষ্টি দিই। আমাদের দেশের মানুষ যাতে ভালো থাকে সেই চেষ্টাই আমরা করি।’

সূত্র: বিডি প্রতিদিন
এম ইউ/০৬ জুলাই ২০২২

Back to top button