জাতীয়

নির্বাচনকালীন নিরপেক্ষ সরকার প্রতিষ্ঠা করতে হবে

ঢাকা, ০১ জুলাই – বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেছেন, এখন আমাদের সামনে একটি চ্যালেঞ্জ। তা হলো এই গায়ের জোরে ক্ষমতায় থাকা সরকারকে বিদায় করতে হবে। নির্বাচনকালীন নিরপেক্ষ সরকার প্রতিষ্ঠা করতে হবে। সেই নির্বাচনে জনগণ নিজের হাতে নিজের ভোট দেবে, মেশিনে নয়। এই দায়িত্ব বিএনপিকে নিতে হবে।

শুক্রবার নয়াপল্টন বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে নিচে এক দোয়া মাহফিলে এসব কথা বলেন তিনি।

বিএনপির স্থায়ী কমিটির এই নেতা বলেন, খালেদা জিয়া এতটাই অসুস্থ তার চিকিৎসকরা বারবার বিদেশে চিকিৎসার জন্য নিতে বলছেন। কেননা বাংলাদেশে তার সেই চিকিৎসা নেই, তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য বিদেশে পাঠানো প্রয়োজন কিন্তু সরকার কর্ণপাত করেনি। আজকে বিএনপি নেতাকর্মীসহ সবার দাবি তাকে চিকিৎসার জন্য বিদেশে পাঠানো হোক। সরকারের পাঠানোর প্রয়োজন নেই। খালেদা জিয়া নিজেই চিকিৎসার জন্য যাবেন। কিন্তু তাকে সাময়িক মুক্তি দেওয়ার সময় যে শর্ত দেওয়া হয়েছে তা প্রত্যাহার করা হোক। সরকার তা করছে না।
তিনি আরও বলেন, সরকারের কাছে একটাই অস্ত্র, খালেদা জিয়াকে, ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানকে এবং বিএনপি পরিবারকে দাবিয়ে রেখে তারা ক্ষমতায় থাকতে চায়।

সরকারের অবহেলার কারণে দেশে করোনা সংক্রমণ বৃদ্ধি পাচ্ছে বলেও মন্তব্য করেন খন্দকার মোশারফ। তিনি বলেন, কয়েক মাস আগে চীনে করোনা সংক্রমণ বৃদ্ধি পেলেও সরকার কোনো গুরুত্ব দেয়নি। এখন আবার করোনা বৃদ্ধি পাচ্ছে, আমাদের নেতৃবৃন্দ আক্রান্ত। এখানেও সরকারের ব্যর্থতা এবং অসাবধানতা।

দোয়া মাহফিলে উপস্থিত ছিলেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আব্দুস সালাম, সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুস সালাম আজাদ, স্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক মীর সরাফত আলী সপু প্রমুখ।

সূত্র: বিডি প্রতিদিন
এম ইউ/০১ জুলাই ২০২২

Back to top button