পশ্চিমবঙ্গ

আরও বিপাকে রোদ্দুর রায়

কলকাতা, ২২ জুন – ক্রমশ বিপদ বাড়ছে ভারতীয় ইউটিউবার রোদ্দুর রায়ের। এবার পাটুলি থানায় দায়ের হওয়া মামলাতেও তাকে ২৬ জুন পর্যন্ত জেল হেফাজতের নির্দেশ দিলো আদালত। ফলে আপাতত জেলেই থাকতে হচ্ছে রোদ্দুরকে। তবে হেয়ার স্ট্রিট থানায় দায়ের হওয়া মামলায় জামিন পেয়েছেন তিনি।

হেয়ার স্ট্রিট, বটতলার পর পাটুলি থানায় রোদ্দুর রায়ের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের হয়েছিল। সেই মামলাতে ২০ তারিখ তাকে গ্রেফতার করে পুলিশ। এদিন সেই মামলাতেই জনপ্রিয় ইউটিউবারকে জেল হেফাজতের নির্দেশ দিলো দেশটির আদালত।

লাইভে মুখ্যমন্ত্রীকে অশালীন ভাষায় আক্রমণ করেন রোদ্দুর রায়। অশ্রাব্য শব্দ প্রয়োগ করা হয় তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক ব্যানার্জী সম্পর্কেও। যার জেরে গত ৩ জুন গোয়া থেকে রোদ্দুরকে গ্রেফতার করে পুলিশ। তার বিরুদ্ধে কলকাতার একাধিক থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছিল। ব্যাঙ্কশাল আদালতে সেই সব মামলার শুনানি চলছে।

অন্যদিকে ২০২০-এর মে মাসে নিজের ফেসবুক অ্যাকাউন্ট ও ইউটিউব চ্যানেলে একটি ভিডিও আপলোড করেছিলেন। যেখানে দেশ, দেশের সংবিধান, সেনা ও পুলিশকে অকথ্য গালিগালাজ করেন রোদ্দুর রায়। দেশের প্রধানমন্ত্রী, কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর বিরুদ্ধেও অবমাননাকর মন্তব্য করেছিলেন তিনি। সেই ভিডিওটিও ভাইরাল হয়।

এফআইআরে অভিযোগকারী জানিয়েছিলেন, সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ঘৃণা ও বিদ্বেষ ছড়াচ্ছেন রোদ্দুর রায়। সেই কারণে তার বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপের দাবিও জানিয়েছেন।

পুলিশের পক্ষ থেকে বিষয়টি খতিয়ে দেখার আশ্বাস দেওয়া হয়েছিল। সেই মতোই লালবাজার থেকে একটি দল পৌঁছায় গোয়ায়। এরপর তাকে গ্রেফতার করেন লালবাজারের পুলিশ কর্মকর্তার।

সূত্র: জাগো নিউজ
এম ইউ/২২ জুন ২০২২

Back to top button