ইউরোপ

‘২ লাখ শিশু অপহরণ করেছে রাশিয়া’

কিয়েভ, ০২ জুন – ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি জানিয়েছেন, জোর করে রাশিয়ায় নিয়ে যাওয়া ইউক্রেনীয়দের মধ্যে দুই লাখ শিশু রয়েছে। এসব শিশুদের মধ্যে রয়েছে- এতিমখানার বাসিন্দা, বাবা-মায়ের সঙ্গে নেওয়া শিশু এবং পরিবার থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়া শিশুরা।

এ খবর জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল জাজিরা।

জেলেনস্কি বলেছেন, এ অপরাধমূলক নীতির উদ্দেশ্য কেবল মানুষ চুরি করা নয়। যারা নির্বাসিত হয়েছে তাদের ইউক্রেন সম্পর্কে ভুলিয়ে দেওয়া এবং ফিরে আসতে অক্ষম করা।

তিনি আরও বলেন, তাদের অবশ্যই শাস্তি দেওয়া হবে, যারা এ অপরাধের সঙ্গে জড়িত। প্রথমে যুদ্ধক্ষেত্রে রাশিয়াকে দেখাতে হবে যে ইউক্রেন জয় করা যাবে না। আমাদের জনগণ আত্মসমর্পণ করবে না। আমাদের সন্তানরা দখলদারদের সম্পত্তিতে পরিণত হবে না।

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট বলেন, যুদ্ধে এখন পর্যন্ত ২৪৩ জন শিশু নিহত হয়েছেন। এছাড়া আহত হয়েছে ৪৪৬ জন। নিখোঁজ রয়েছে ১৩৯ জন। রুশ বাহিনীর দখল করা এলাকার পূর্ণ চিত্র ইউক্রেন সরকারের কাছে না থাকায় এসব হতাহতের সংখ্যা আরও বেশি হতে পারে।

প্রসঙ্গত, ১ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনের পূর্বাঞ্চলীয় ডোনেটস্ক ও লুহানস্ক অঞ্চলকে আলাদা স্বাধীন রাষ্ট্র হিসেবে স্বীকৃতি দেন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। রুশ ভাষাভাষী অধ্যুষিত এ দু’টি অঞ্চল একত্রে ডোনবাস নামে পরিচিত। স্বাধীন রাষ্ট্রের স্বীকৃতির পর অঞ্চল দুটিকে বেসামরিকীকরণের লক্ষ্যে ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনে বিশেষ সামরিক অভিযান শুরু করে রাশিয়া। অভিযানে এখন পর্যন্ত ইউক্রেনের বেশ কয়েকটি নগরী দখল করে নিয়েছে রাশিয়া। ইউক্রেনও তাদের সাধ্যমত প্রতিরোধ গড়ে তুলছে। চলমান এ যুদ্ধে বহু সাধারণ মানুষের মৃত্যু হয়েছে।

সূত্র: বাংলানিউজ
এম ইউ/০২ জুন ২০২২

Back to top button