অন্যান্য

দর্শকদের স্বপ্নের ম্যাচে মুখোমুখি জোকোভিচ-নাদাল

বহুল প্রতীক্ষার দিনটি এসে গেলো। টেনিসের দুই মহাতারকা রাফায়েল নাদাল ও নোভাক জোকোভিচ মুখোমুখি হচ্ছেন ফ্রেঞ্চ ওপেনের কোয়ার্টার ফাইনালে। মঙ্গলবার বাংলাদেশ সময় দিবাগত রাত পৌনে একটায় ফিলিপ্পে ছাত্রিয়ের কোর্টে দেখা হচ্ছে তাদের।

ম্যাচের আগে জোকোভিচের কোচ গোরান ইভানিসেভিচ একে ‘দর্শকদের স্বপ্নের ম্যাচ’ আখ্যা দিয়েছেন। তিনি বলেছেন, ‘এটা হতে যাচ্ছে দারুণ। রোলাঁ গারোঁর সেরা কোয়ার্টার ফাইনাল হতে যাচ্ছে। তারা দুজনেই প্রস্তুত, দুজনেই ফিট এবং আমরা দেখবো কী হতে যাচ্ছে।’

এনিয়ে ৫৯তম বার কোর্টে মুখোমুখি হচ্ছেন জোকোভিচ ও নাদাল। সব সারফেস মিলিয়ে ৩০-২৮ এ স্প্যানিশ তারকার চেয়ে এগিয়ে সার্বিয়ান। তবে ক্লে কোর্টে নাদাল ১৯-৮ এ এগিয়ে, আর ফ্রেঞ্চ ওপেনেও তিনি ৭-২ এ পেছনে রেখেছেন সার্ব তারকাকে। অবশ্য গতবার সেমিফাইনালে চার সেটে হেরে যান তিনি।

তবে এই বছরের শুরুতে মহাকাব্যিক অস্ট্রেলিয়ান ওপেন জিতে ২১তম গ্র্যান্ড স্লাম জেতেন নাদাল। রোলাঁ গারোঁয় জিতলে তার পাশে বসবেন ২০ বারের গ্র্যান্ড স্লাম জয়ী জোকোভিচ। সেই লক্ষ্য থেকে বিচ্যুত করতেই তার মুখোমুখি হচ্ছেন ১৩ বারের ফ্রেঞ্চ ওপেন চ্যাম্পিয়ন নাদাল।

কিন্তু এই লড়াইয়ে নামার আগে ফিটনেসে খানিকটা পিছিয়ে স্প্যানিশ তারকা। একক ড্রয়ের একমাত্র খেলোয়াড় হিসেবে এখন পর্যন্ত কোনো সেট হারেননি জোকোভিচ, আর নাদাল শেষ ষোলোতে হেরেছেন একটি সেট। তাছাড়া এই প্রতিযোগিতার ইতিহাসে তৃতীয়বার পাঁচ সেটের ম্যাচটি খেলে বেশ ক্লান্ত তিনি। এই প্রতিযোগিতায় নামার আগে ক্লে কোর্টের প্রস্তুতিও ভালো হয়নি তার।

একদিকে ইনজুরি, অন্যদিকে আত্মবিশ্বাসেও একটু ঘাটতি দেখা গেছে নাদালের, ‘তার বিপক্ষে আমার পরীক্ষা দেওয়া হয়নি, কারণ তার বিপক্ষে আমার শেষ ম্যাচ ছিল গত বছর। গত তিন মাস ধরে এমন ম্যাচ খেলিওনি। এটা হতে যাচ্ছে আমার জন্য বড় চ্যালেঞ্জ। আমি জানি আমার পরিস্থিতি কী এবং এটা মেনে নিয়েছি। আমি এখন রোলাঁ গারোঁয়। আড়াই সপ্তাহ আগেও আমি জানতাম না এখানে থাকতে পারবো কি না। আমি জানি না আমার টেনিস ক্যারিয়ারে এখানেই এটা শেষ ম্যাচ কি না।’

সূত্র : রাইজিংবিডি
এম এস, ৩১ মে

Back to top button