ক্রিকেট

ফাইনালে গুজরাটের সামনে রাজস্থান নাকি বেঙ্গালুরু?

মুম্বাই, ২৭ মে – গত সপ্তাহের কথা, খাদের কিনারায় ছিল রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু। শেষ পর্যন্ত দিল্লি ক্যাপিটালসের বিপক্ষে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের জয়ে ভর করে প্লে অফে ওঠে তারা। ভাগ্যের জোরে এলিমিনেটরে জায়গা পেয়ে তাদের যেন ফিনিক্স পাখির মতো পুনরুত্থান ঘটলো। স্বপ্নের আইপিএল শিরোপা থেকে আর দুটি জয় দূরে বেঙ্গালুরু।

প্রথম কোয়ালিফায়ার জিতে ফাইনালে উঠে গেছে গুজরাট টাইটান্স। তাদের বিপক্ষে শিরোপা নির্ধারণী লড়াই নিশ্চিত করার পথে বেঙ্গালুরুর সামনে বাধা কেবল রাজস্থান রয়্যালস। কলকাতার ইডেন গার্ডেন্সে রান উৎসব করে দুই দল দ্বিতীয় কোয়ালিফায়ারে মুখোমুখি হচ্ছে আহমেদাবাদে। টুর্নামেন্টের শীর্ষ ব্যাটসম্যান জস বাটলার তিন ম্যাচ (৭, ২, ২) পর ফের রানের দেখা পেয়েছেন। যদিও গুজরাটের বিপক্ষে তার ৮৯ রানের সেরা ইনিংস রাজস্থানের কাজে আসেনি। বোলিং বিভাগের প্রসিদ্ধ কৃষ্ণা ও রবিচন্দ্রন অশ্বিনের লাইন-লেন্থ ঠিকঠাক ছিল না। যার কারণে হার মানতে হয়েছিল তাদের। ছয় ব্যাটসম্যান ও পাঁচ বোলারকে নিয়ে খেলানোর ঝুঁকি তাদের বিরুদ্ধে গেছে।

অন্যদিকে লক্ষ্ণৌ সুপার জায়ান্টসের বিপক্ষে রজত পতিদারের দানবীয় ব্যাটিংয়ে টুর্নামেন্টে অসাধারণ পুনরুত্থান ঘটেছে বেঙ্গালুরুর। বিরাট কোহলি, ফাফ ডু প্লেসির ব্যর্থতার দিনে তার অপরাজিত ১১২ রান ছিল মন্ত্রমুগ্ধকর।

বোলিংয়ে হার্শাল প্যাটেল ও জশ হ্যাজেলউডকে নিয়ে বেঙ্গালুরু ভালো কিছুর প্রত্যাশা করতে পারে। স্পিনে ওয়ানিন্দু হাসারাঙ্গাও ভোগাতে পারেন রাজস্থানকে।

মাঠের বাইরের একটি ব্যাপার বেঙ্গালুরুর বিরুদ্ধে আছে। মোতেরার কন্ডিশন অনেকটাই চেনা রাজস্থানে, অতীতে এটি ছিল তাদের হোম ভেন্যু। ১২ ম্যাচ খেলে জিতেছে সাতটি।

অবশ্য একটি পরিসংখ্যান কিন্তু বেঙ্গালুরুকে আশাবাদী করে তুলতে পারে। লিগ পর্বের শীর্ষ দুই দলের বাইরের দল শেষবার চ্যাম্পিয়ন হয়েছে বিদেশি অধিনায়কের নেতৃত্বে। মনে রাখা প্রয়োজন, এই বছরের প্লে অফে ডু প্লেসি একমাত্র বিদেশি অধিনায়ক।

বেঙ্গালুরু কি পারবে রাজকীয় লড়াই জিততে! তারপর গুজরাট বাধা পেরিয়ে কি ধরা দেবে প্রথম আইপিএল শিরোপা? জানতে অপেক্ষা করতে হবে।

বাংলাদেশ সময় রাত ৮টায় মুখোমুখি হচ্ছে বেঙ্গালুরু ও রাজস্থান। আগামী রোববার হবে ফাইনাল।

সূত্র : রাইজিংবিডি
এম এস, ২৭ মে

Back to top button