জাতীয়

ডেসটিনির রফিকুলের ১২ বছরের কারাদণ্ড

ঢাকা, ১৩ মে – ডেসটিনি ২০০০ লিমিটেডের ৪ হাজার ১১৯ কোটি ২৪ লাখ টাকা মানিলন্ডারিং আইনের দুই মামলার একটি মামলায় ব্যবস্থাপনা পরিচালক রফিকুল আমীনের ১২ বছর কারাদণ্ডের রায় ঘোষণা করেছেন আদালত। একই সঙ্গে জেনারেল (অব.) হারুন-অর-রশিদের চার বছরসহ অপর ৪৪ জনের বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ডের রায়ও ঘোষণা করেছেন আদালত।

আজ বৃহস্পতিবার ঢাকার চার নম্বর বিশেষ জজ শেখ নাজমুল আলম এ রায় ঘোষণা করেন। রায়ে রফিকুল আমীনের ২শ কোটি টাকা অর্থদণ্ড এবং চেয়ারম্যান মোহাম্মদ হোসেনের একশ কোটি টাকা অর্থদণ্ড করেছেন আদালত।

রায় ঘোষণার এ মামলাটি ডেসটিনি মাল্টিপারপাস কো-অপারেটিভ সোসাইটির দুর্নীতির মামলা বলে জানান দুদকের স্পেশাল পাবলিক প্রসিকিউটর মীর আহমেদ আলী সালাম।

২০১৪ সালের ৪ মে চার্জশিট দাখিল করে দুদক। এ মামলায় আসামি ৪৬ জন আসামি। যাদের মধ্যে রফিকুল আমীন, প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান মোহাম্মদ হোসেন ও লে. কর্নেল (অব.) মো. দিদারুল আলম গত ১০ বছর ধরে কারাগারে আছেন। জামিনে আছেন- আসামি লে. জেনারেল (অব.) হারুন-অর-রশিদ, মিসেস জেসমিন আক্তার (মিলন), জিয়াউল হক মোল্লা ও সাইফুল ইসলাম রুবেল। বাকি আসামিরা আসামি ১০ বছর পর এখনো পলাতক রয়েছেন।

মাল্টিপারপাস কো-অপারেটিভের নামে ডেসটিনি বিনিয়োগকারীদের কাছ থেকে সংগ্রহ করে ১ হাজার ৯০১ কোটি টাকা। সেখান থেকে ১ হাজার ৮৬১ কোটি ৪৫ লাখ টাকা আত্মসাৎ করা হয়। ওই অর্থ আত্মসাতের ফলে সাড়ে ৮ লাখ বিনিয়োগকারী ক্ষতির মুখে পড়েন।

২০১৬ সালের ৬ নভেম্বর ডেসটিনি মাল্টিপারপাস মামলায় বাদী দুদকের উপ-পরিচালক মো. তৌফিকুল ইসলাম সাক্ষ্য দেওয়া শুরু করেন। মামলাটিতে আদালত চার্জশিটে থাকা ৩০৩ জন সাক্ষীর মধ্যে ২০২ জন সাক্ষীর সাক্ষ্য গ্রহণ করেন।

সূত্র : আমাদের সময়
এন এ/ ১৩ মে

Back to top button