জাতীয়

জন্মভূমি সিলেটে শায়িত হবেন আবদুল মুহিত

ঢাকা, ৩০ এপ্রিল – গত রাতে রাজধানীর ইউনাইটেড হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছেন সাবেক অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। তাকে নিজ জন্মভূমি সিলেটের মাটিতে চিরনিদ্রায় শায়িত করা হবে। তার আগে শনিবার দুপুর ২টায় তাকে সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য তার মরদেহ ঢাকায় কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে নেয়া হবে।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক বার্তায় বলা হয়েছে, শনিবার সকাল সাড়ে ১০টায় গুলশান আজাদ মসজিদে আবদুল মুহিতের প্রথম এবং সকাল সাড়ে ১১টায় সংসদ প্লাজায় দ্বিতীয় জানাজা অনুষ্ঠিত হবে। দুপুর ২টায় সর্বস্তরের মানুষের শ্রদ্ধা নিবেদনের জন্য তার মরদেহ নেয়া হবে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে। এরপর সেখান থেকে দাফনের জন্য মরদেহ নিয়ে যাওয়া হবে জন্মভূমি সিলেটে।

বার্ধক্যের নানা জটিলতায় সাবেক অর্থমন্ত্রী বেশ কিছুদিন থেকে অসুস্থ ছিলেন। মাঝে তাকে কয়েক দফায় হাসপাতালে ভর্তিও করা হয়। আবুল মাল আবদুল মুহিত লিভার ক্যানসারে ভুগছিলেন। করোনার মধ্যে দেড় বছর আগে এই রোগ সম্পর্কে জানতে পারেন তিনি। এর মধ্যে করোনায়ও আক্রান্ত হন মুহিত।

শুক্রবার দিবাগত রাত ১২টা ৫৬ মিনিটে হাসপাতালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন আবদুল মুহিত। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৮৮ বছর।

আবুল মাল আবদুল মুহিত ১৯৩৪ সালের ২৫ জানুয়ারি সিলেটে জন্মগ্রহণ করেন। তার মা সৈয়দা শাহার বানু চৌধুরী ও বাবা আবু আহমদ আবদুল হাফিজ দুইজনই তৎকালীন সিলেট জেলার রাজনীতিতে সক্রিয় ছিলেন। পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন তার ছোট ভাই।

আবুল মাল আব্দুল মুহিত একজন খ্যাতনামা অর্থনীতিবিদ, রাজনীতিবিদ, লেখক ও ভাষাসৈনিক ছিলেন। ২০০৯ সাল থেকে ২০১৮ সাল পর্যন্ত বাংলাদেশ সরকারের অর্থমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন তিনি।

সূত্র : বাংলাদেশ জার্নাল
এম এস, ৩০ এপ্রিল

Back to top button