ক্রিকেট

ক্রিকেট জীবন দীর্ঘ করতেই আর টেস্ট না খেলার সিদ্ধান্ত

ঢাকা, ২৩ এপ্রিল – এখন আর টেস্ট ক্রিকেট খেলেন না মুস্তাফিজুর রহমান। তিনি নিজেই বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) টেস্টের চুক্তি থেকে বেরিয়ে এসেছেন। কেন আর লাল বলের ক্রিকেটে আগ্রহ পাচ্ছেন না সে কথা নিজেই জানালেন তিনি।

বিসিবি ক্রিকেটারদের সঙ্গে ফরম্যাট ভিত্তিক চুক্তি করার সিদ্ধান্ত নিলে টেস্ট ক্রিকেটের জন্য নিজেকে চুক্তিবদ্ধ করেননি মুস্তাফিজ। আন্তর্জাতিক ক্রিকেট জীবনকে দীর্ঘ করতেই এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তিনি। মুস্তাফিজুর বলেছেন, ‘‘টেস্ট ক্রিকেট খেলা নিয়ে নিজের বক্তব্য বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডকে জানাতে চাই। অবশ্যই বোর্ড যদি জানতে চায়।’’

টেস্ট ক্রিকেট না খেলার কারণ জানিয়েছেন মুস্তাফিজুর। তিনি বলেন, স্বাস্থ্য আমার কাছে খুবই গুরুত্বপূর্ণ। বাংলাদেশের জাতীয় দলের হয়ে দীর্ঘদিন খেলতে হলে আমাকে ফিট থাকতেই হবে। এটা খুব গুরুত্বপূর্ণ। ফিট থাকার জন্যই আমার মনে হয়েছে ক্রিকেটের তিনটি ফরম্যাটের মধ্যে বেছে নেয়া উচিত।

মুস্তাফিজুর আরও বলেছেন, নিজের পরিসংখ্যান এবং সাফল্য বিচার করেই এক দিনের ক্রিকেট এবং টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট বেছে নিয়েছি। এই দুই ফরম্যাটের উপরেই গুরুত্ব দিতে চাইছি। সারা বিশ্বে বহু ক্রিকেটারই তাদের পছন্দের ফরম্যাট বেছে নিয়েছে। নিজেদের ক্রিকেট জীবনকে দীর্ঘ করতেই এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে তারা। তা ছাড়া দল কখনও নির্দিষ্ট এক জন ক্রিকেটারের উপর নির্ভর করে না।

২০২১ সালের ফেব্রুয়ারিতে ঘরের মাঠে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে শেষ টেস্ট খেলেছেন মুস্তাফিজুর। তার পরেই লাল বলের চুক্তি থেকে নিজেকে সরিয়ে নেন তিনি। জিম্বাবোয়ে, পাকিস্তান, নিউজিল্যান্ড এবং দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজে খেলেননি মুস্তাফিজুর। ভবিষ্যতেও তিনি আর টেস্ট ক্রিকেট খেলতে চান না। এ নিয়ে বিসিবি-র সঙ্গে কথা বলতে চান তিনি।

মুস্তাফিজুর বলেছেন, আমি দেখেছি সিনিয়ররা ফরম্যাট বেছে নেয়ার ব্যাপারে বিসিবি সভাপতির সঙ্গে আলোচনা করেছে। আমিও সভাপতির সঙ্গে কথা বলতে চাই। যদিও তিনি গোটা পরিস্থিতি সম্পর্কে ভালই ওয়াকিবহাল। বিসিবি অবশ্য আমাকে কখনও টেস্ট খেলার জন্য চাপ দেয়নি। আমি লাল বলের ক্রিকেটের জন্য চুক্তিবদ্ধ নই।

সূত্র : বাংলাদেশ জার্নাল
এম এস, ২৩ এপ্রিল

Back to top button