জাতীয়

ধর্মঘটের জন্য কারও বিরুদ্ধে ব্যবস্থা না নেওয়ার নির্দেশ রেলমন্ত্রীর

ঢাকা, ১৩ এপ্রিল – কর্মবিরতি প্রত্যাহার করে নিয়েছেন বেতনভাতা বা মাইলেজ সুবিধার দাবিতে আন্দোলনরত রেলওয়ের রানিং স্টাফরা। বুধবার দুপুরে রেলপথমন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজনের আশ্বাসের পর তারা ধর্মঘট প্রত্যাহারের ঘোষণা দেন। সেই সঙ্গে ধর্মঘটের জন্য কারো বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা না নেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন তিনি।

এর আগে বুধবার ভোর ৬টা থেকে আচমকা ট্রেন চলাচল বন্ধ করে দেন রেলওয়ের কর্মীরা। এতে সারা দেশে ট্রেন যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে। এতে সারা দেশের ট্রেনযাত্রীরা পড়েন চরম দুর্ভোগে।

পরে রেলমন্ত্রী তাদের দাবি মেনে নিয়ে বলেন, ‘রেলের রানিং স্টাফদের যে অসুবিধা ছিল, তা নিয়ে আমি অর্থ মন্ত্রণালয় যোগাযোগ করেছি। সেখান থেকে আমাকে জানানো হয়েছে— যে প্রজ্ঞাপনের কারণে অচলাবস্থা তৈরি হয়েছে, সেটি আমরা বাতিল করে দেব। তার পরিপ্রেক্ষিতে আমি ঘোষণা দিচ্ছি যে, গত ১০ এপ্রিল যে প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়েছে, সেটি বাতিল করা হলো।’

মন্ত্রী বলেন, ‘আগামী ১৯ এপ্রিল প্রধানমন্ত্রী আমাকে সময় দিয়েছেন। আমার সচিবসহ আমি দেখা করব। আশা করছি আগামী ১৯ তারিখের মধ্যে বিষয়টির ফয়সালা আমরা পেয়ে যাব। আবার পেনশনভাতা যেভাবে রানিং স্ট্যাটাস ছিল, সেভাবেই পাবে বলে আশা করি।’

কর্মবিরতির জন্য কারও বিরুদ্ধে ব্যবস্থা না নিতে রেল বিভাগ ও মন্ত্রণালয়কে নির্দেশও দেন মন্ত্রী। বলেন, একটি ষড়যন্ত্রকারী মহল রেলের বিরুদ্ধে এখনও ষড়যন্ত্র করে যাচ্ছে। ওই সময় মন্ত্রীর সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন রেলওয়ে রানিং স্টাফদের নেতারা।

সূত্র : যুগান্তর
এম এস, ১৩ এপ্রিল

Back to top button