দক্ষিণ এশিয়া

বিদেশি ষড়যন্ত্রের প্রমাণ মিললে সঙ্গে সঙ্গে প্রধানমন্ত্রিত্ব ছেড়ে দেব : শেহবাজ শরীফ

ইসলামাবাদ, ১১ এপ্রিল – নানা নাটকীয়তার পর অবশেষে পাকিস্তানে সরকার পরিবর্তন হয়ে গেল। দেশটিতে নতুন প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন শেহবাজ শরীফ।

তবে সরকার পরিবর্তনের বিষয়টিকে বিদেশি ষড়যন্ত্র হিসেবে দাবি করে আসছেন ইমরান খান ও তার দল পিটিআই।

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত হওয়ার পরই বিদেশি ষড়যন্ত্রের বিষয়টি নিয়ে কথা বলেন নয়া প্রধানমন্ত্রী শেহবাজ শরীফ। তিনি বলেন, বিদেশি ষড়যন্ত্রের বিষয়টি ভুয়া। এটি যদি প্রমাণ হয় তাহলে তিনি সঙ্গে সঙ্গে প্রধানমন্ত্রিত্ব ছেড়ে দেবেন।

এ ব্যাপারে দেশটির জাতীয় পরিষদে শেহবাজ শরীফ বলেন, তারা দাবি করছে, ষড়যন্ত্রমূলক চিঠিটি ৭ মার্চ তাদের হাতে এসেছে। কিন্তু আমরা এর অনেক আগেই নিজেদের সিদ্ধান্ত (অনাস্থা ভোট আয়োজন করা) ঠিক করেছিলাম। তার মানে তাদের দাবিটি মিথ্যা। বিষয়টি স্বচ্ছভাবে সাধারণ মানুষের কাছে প্রকাশ করা উচিত।

তিনি আরও বলেন, যদি এক দানা পরিমাণ বিদেশি ষড়যন্ত্রের প্রমাণ পাওয়া যায়, তাহলে মাননীয় স্পিকার আপনাকে ও আল্লাহকে সাক্ষী রেখে বলছি, আমি এক সেকেন্ডও ভাববো না, প্রধানমন্ত্রীর পদ থেকে পদত্যাগ করব।

এদিকে শাহবাজ শরীফ জানিয়েছেন, ইমরান খান ও পিটিআইয়ের সদস্যদের করা এ দাবিটি যথাযথভাবে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করবেন তারা।

তিনি আরও জানিয়েছেন, কথিত ষড়যন্ত্রমূলক চিঠির বিষয়টি জানতে যুক্তরাষ্ট্রে নিযুক্ত ওই রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে ভিডিওকলে কথা বলা হবে। তাছাড়া নিরাপত্তা বাহিনীর কাছেও এ চিঠি দেওয়া হবে।

সূত্র: যুগান্তর
এম ইউ/১১ এপ্রিল ২০২২

Back to top button