দক্ষিণ এশিয়া

কাল আমিই জিতব: ইমরান খান

ইসলামাবাদ, ০২ এপ্রিল – রাজনৈতিক জীবনে বড় চ্যালেঞ্জের মুখে পড়েছেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। তার সরকারের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে দেশের অর্থনীতি ও পররাষ্ট্রনীতিতে বিপর্যয় ডেকে আনার। এই অভিযোগে বিরোধী দলগুলো তার বিরুদ্ধে পার্লামেন্টে অনাস্থা প্রস্তাব উত্থাপন করেছে। রোববার সেই অনাস্থা প্রস্তাব নিয়ে ভোটাভুটি হওয়ার কথা রয়েছে।

অনাস্থা ভোটের আগে শনিবার বিকেল সাড়ে ৫টা নাগাদ টিভিতে সম্প্রচারিত ভাষণে যুবসমাজকে উদ্বুদ্ধ করার পাশাপাশি বিরোধীদের বিরুদ্ধে আবারও চক্রান্তের অভিযোগ করেছেন তিনি।

এর পর শনিবার নাগরিকদের সঙ্গে সরাসরি কথা বলার সিদ্ধান্ত নেন ইমরান খান। লাইভ সম্প্রচারেই তাদের ফোন কল নেন তিনি। এ সময় এক প্রশ্নের উত্তরে জাতীয় পরিষদের অনাস্থা ভোট নিয়ে তার পরিকল্পনা আছে জানিয়ে ইমরান খান বলেন, আমার একাধিক পরিকল্পনা আছে। কাল আমিই জিতব। জিও নিউজ এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

এসময় পাকিস্তানের খাইবার পাখতুনখাওয়া প্রদেশের স্থানীয় সরকার নির্বাচনে ইমরানের দল তেহরিক-ই-ইনসাফ (পিটিআই) ‘অপ্রতিরোধ্য সাফল্য’ এর বিষয়টিও তুলে ধরেন তিনি।

তবে নিজের পরিকল্পনার ব্যাপারে বিস্তারিত কিছু জানাননি তিনি।

এর আগে ইমরান খান বলেছিলেন, তাকে যে তিনটি বিকল্প প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে সেগুলোর মধ্যে রয়েছে— অনাস্থা প্রস্তাব, পদত্যাগ ও আগাম নির্বাচন।

বিরোধীদল, সরকার বা ‘অন্য পক্ষ’ আগাম নির্বাচন দেওয়া কিংবা তার পদত্যাগের প্রস্তাব করেছে কিনা সে প্রশ্নের জবাব দিতে গিয়ে উল্লিখিত কথা বলেন ইমরান খান।

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী জানান, তিনটি বিকল্প প্রস্তাব তার কাছে উপস্থাপন করার পর তিনি বলেছিলেন, ‘নির্বাচনই সেরা বিকল্প। আমি পদত্যাগ করার কথা ভাবতেও পারি না। অনাস্থা ভোটের বিষয়ে বলবো, আমি শেষ পর্যন্ত লড়াইয়ে বিশ্বাস করি।’

নিজের দল তেহরিক-ই-ইনসাফের বেশ কয়েকজন সদস্য অনাস্থা ভোটের আগে বিরোধীদের শিবিরে চলে গেছে উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘বিরোধীদের অনাস্থার পদক্ষেপ ব্যর্থ হলেও আমরা এ ধরনের লোকদের (দলত্যাগী) দিয়ে সরকার চালাতে পারি না। তাই আবার নির্বাচন হলেই পাকিস্তানের জন্য ভালো হবে।’

আগাম নির্বাচনে যাওয়ার জন্য প্রস্তুত কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে ইমরান খান বলেন, ‘যদি আমরা এ অনাস্থা ভোটে জয়লাভ করি, তবে আগাম নির্বাচনে যাওয়া খুবই ভালো হবে।’

বিরোধী দলের অনাস্থা প্রস্তাব ব্যর্থ হলে সরকারের কৌশল কী হবে এমন প্রশ্নের জবাবে ইমরান বলেন, ‘আমরা আগামী কয়েকদিনের মধ্যে একটি কৌশল তৈরি করব।’

সূত্র: যুগান্তর
এম ইউ/০২ এপ্রিল ২০২২

Back to top button