দক্ষিণ এশিয়া

পিটিআই নেতা বললেন, ইমরান খানকে হত্যার পরিকল্পনা করা হচ্ছে

ইসলামাবাদ, ৩১ মার্চ – পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে হত্যার পরিকল্পনা করা হচ্ছে বলে দাবি করেছেন পাকিস্তান তেহরিক-ই- ইনসাফ (পিটিআই) দলের নেতা ফয়সাল ভাওদা।

বুধবার সন্ধ্যায় দেশটি একটি টেলিভিশনকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি এ দাবি করেন। খবর দ্য এক্সপ্রেস ট্রিবিউনের।

সংসদে অনাস্থা ভোটে ইমরান খানের প্রধানমন্ত্রিত্ব হারানোর ঝুঁকি ও পাকিস্তানে রাজনৈতিক অস্থিরতা বৃদ্ধি পাওয়ার মাঝেই তিনি এ মন্তব্য করেন।

প্রধানমন্ত্রীর নিরাপত্তা জোরদারের প্রয়োজনীয়তার কথা পুনর্ব্যক্ত করে ক্ষমতাসীন দলের এ নেতা ইমরানকে জনসভায় ভাষণের সময় বুলেটপ্রুফ গ্লাস ব্যবহারের আহ্বান জানান।

সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, ইমরান খান তাদের উদ্বেগকে পাত্তা দিচ্ছেন না। বরং বলেছেন, মরার সময় হলে তিনি মারা যাবেন।

ভাওদা আরও বলেন, প্রধানমন্ত্রী ইমরান একজন সাহসী মানুষ। পাকিস্তানের ব্যাপারে কোনো আপস তিনি করবেন না। পাকিস্তানকে কারও সামনে মাথানত করতে দেবেন না।

পিটিআইয়ের এ নেতা দাবি করেন, এর আগেও ইমরান খান এমন হুমকি পেয়েছিলেন। এখন সেই পরিকল্পনা বাস্তবায়নের ষড়যন্ত্র হচ্ছে।

মুত্তাহিদা কওমি মুভমেন্ট পাকিস্তান (এমকিউএম-পি) দলটি কোয়ালিশন সরকার থেকে নিজেদের সমর্থন তুলে নেওয়ার ঘণ্টাখানেক পরই এই দাবি করেন ভাওদা।

এমকিউএম বলেছে, তারা সংসদে প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের বিরুদ্ধে আনীত অনাস্থা প্রস্তাবে বিরোধী দলকে সমর্থন দেবেন। প্রায় সপ্তাহখানেকের চেষ্টায় বিরোধীরা কোয়ালিশন সরকারের অংশীদার এমকিউএমকে প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে অনাস্থা ভোটে নিজেদের পক্ষে নিতে সক্ষম হয়েছে। আর এতে করে বর্তমান সরকার সংসদে সংখ্যাগরিষ্ঠতা হারাতে পারে।

প্রসঙ্গত আগামী ৩ এপ্রিল পাকিস্তানের জাতীয় পরিষদে ইমরানের বিরুদ্ধে বিরোধীদের আনা অনাস্থা প্রস্তাবের ওপর ভোটাভুটি হওয়ার কথা রয়েছে।

সূত্র: যুগান্তর
এম ইউ/৩১ মার্চ ২০২২

Back to top button