দক্ষিণ এশিয়া

‘দ্য কাশ্মীর ফাইলস’ নিয়ে সমালোচনা করায় কেজরিওয়ালের বাড়িতে হামলা

নয়াদিল্লি, ৩০ মার্চ – সম্প্রতি ভারতের আলোচিত-সমালোচিত ছবি দ্য কাশ্মীর ফাইলসের সমালোচনা করায় দেশটির আম আদমি পার্টির নেতা ও রাজধানী দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়ালের বাড়িতে হামলা চালিয়েছে ক্ষমতাসীন বিজেপির কর্মীরা।

বুধবার (৩০ মার্চ) দিল্লির মুখ্যমন্ত্রীর বাড়ির সামনে বিক্ষোভ দেখান বিজেপির যুব সংগঠন ভারতীয় জনতা যুব মোর্চার নেতাকর্মীরা। নেতৃত্বে ছিলেন বিজেপি সাংসদ তেজস্বী সূর্য।

এসময় কেজরিওয়ালের বাড়ির গেট ও সামনের ব্যারিকেড ভাঙচুর হয় বলে অভিযোগ ওঠে। আম আদমি পার্টির অভিযোগ, কেজরিওয়ালের বাসভবনে রীতিমতো ভাঙচুর করা হয়েছে। বিজেপি আশ্রিত দুষ্কৃতীরা সিসিটিভি ভেঙেছে। নিরাপত্তার জন্য তৈরি ব্যারিকেডও ভাঙা হয়েছে।

বিজেপির অভিযোগ, আম আদমি পার্টির প্রধান কাশ্মীরি পণ্ডিতদের গণহত্যার বিষয়টিই অস্বীকার করেছেন। ফলে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর প্রশংসা কুড়ানো ‘দ্য কাশ্মীর ফাইলস’ সিনেমার সমালোচনা করে বিজেপির নিশানা হলেন দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী।

আম আদমী পার্টির (আপ) নেত্রী আতিশী বলেন, উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ভাবে কেজরিওয়ালের বাড়িতে হামলা চালিয়েছে বিজেপি। পুলিশ ঘটনাস্থলে হাজির থাকলেও কোনো ব্যবস্থা নেয়নি।

এর আগে পরিচালক বিবেক অগ্নিহোত্রীর বিরুদ্ধে বিজেপির সাহায্যে উদ্দেশ্যমূলক ছবি বানানোর অভিযোগ তুলেন কেজরিওয়াল।

পাশাপাশি অভিযোগ তুলেছিলেন, নরেন্দ্র মোদী সরকার তিন দশক আগে অশান্তির জেরে ঘরছাড়া কাশ্মীরি পণ্ডিতদের পুনর্বাসনের জন্য কিছুই করেনি।

নব্বইয়ের দশকের গোড়ায় কাশ্মীরি পণ্ডিতদের ওপর হামলাকে ‘গণহত্যা’ বলা যায় কি না, তা নিয়েও প্রশ্ন তুলেছেন কেজরি। বিজেপির অভিযোগ, দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী কাশ্মীরি পণ্ডিতদের গণহত্যার বিষয়টিই অস্বীকার করেছেন।

কয়েক দিন আগে দিল্লি বিধানসভায় দাঁড়িয়ে ‘দ্য কাশ্মীর ফাইলস’ ছবির প্রযোজক এবং এই ছবির প্রমোশন করা বিজেপিকে তীব্র কটাক্ষ করেন কেজরিওয়াল। দিল্লির মুখ্যমন্ত্রীর কটাক্ষ ছিল, ‘৮ বছর দেশের প্রধানমন্ত্রী থাকার পরেও ভোট পাওয়ার জন্য মোদিকে শেষ পর্যন্ত বিবেক অগ্নিহোত্রীর শরণাপন্ন হতে হচ্ছে!’

দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘কাশ্মীরি পণ্ডিতদের নাম করে কোটি কোটি টাকা রোজগার করছেন অনেকে। আর বিজেপি বিবেক অগ্নিহোত্রীর হয়ে পোস্টার লাগানোর কাজ করছে! তাও একটি মিথ্যা ছবির!’

কেজরিওয়ালের ওই ‘মিথ্যা ছবি’ মন্তব্যের তীব্র প্রতিক্রিয়া শুরু হয় সোশ্যাল মিডিয়ায়। দিল্লির মুখ্যমন্ত্রীকে তোপ দাগেন ছবির মুখ্য ভূমিকায় অভিনয় করা অনুপম খের, তোপ দাগেন পরিচালক বিবেক অগ্নিহোত্রীও।

‘দ্য কাশ্মীর ফাইলস’ ছবি নিয়ে হিন্দুদের মধ্যে যে ভাবাবেগ দেখা যাচ্ছে, সেটাকে কাজে লাগাতে আসরে নেমে পড়ে বিজেপিও। কেজরির বিরুদ্ধে শুরু হয় প্রচার। প্রকাশ্যে বিধানসভায় দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী যেভাবে ‘দ্য কাশ্মীর ফাইলস’ নিয়ে রসিকতা করেছেন, সেটাকে ‘হিন্দুদের অপমান’ হিসেবে প্রচার শুরু করে বিজেপি।

সূত্র : দেশ রূপান্তর
এম এস, ৩০ মার্চ

Back to top button