ইউরোপ

৪৩ রুশ কূটনীতিককে বহিষ্কার করল ইউরোপের ৪ দেশ

মস্কো, ৩০ মার্চ – গুপ্তচরবৃত্তির সন্দেহে ৪০ জনেরও বেশি রুশ কূটনীতিককে বহিষ্কার করছে ইউরোপীয় ইউনিয়নের চারটি দেশ।

মঙ্গলবার (২৯ মার্চ) বিকেলে আয়ারল্যান্ড, বেলজিয়াম, নেদারল্যান্ডস ও চেক প্রজাতন্ত্র রুশ দূতাবাসের মোট ৪৩ জন কর্মীকে বহিষ্কারের আদেশ জারি করে।

গত সপ্তাহে পোল্যান্ডসহ অন্যান্য ইইউ সদস্য দেশ একই ধরনের পদক্ষেপ নিয়েছিল।

বেলজিয়ামের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সোফি উইলমস বলেন, এই বহিষ্কারাদেশ ‘আমাদের জাতীয় নিরাপত্তার সঙ্গে সম্পর্কিত’।

পার্লামেন্টে তিনি বলেন, ব্রাসেলসে রাশিয়ান দূতাবাস এবং এন্টওয়ার্প কনস্যুলেটের ২১ জন কর্মীকে দেশ ছেড়ে যেতে বলা হয়েছে। তাদের চলে যাওয়ার জন্য দুই সপ্তাহ সময় বেধে দেওয়া হয়েছে।

নেদারল্যান্ডসের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানায়, তারা ১৭ জন রাশিয়ান কূটনীতিককে বহিষ্কার করছে, যাদেরকে গোয়েন্দা কর্মকর্তা হিসেবে ‘গোপনে সক্রিয়’ বলে মনে করা হচ্ছে।

আয়ারল্যান্ডের তাওইসেচ (প্রধানমন্ত্রী) মাইকেল মার্টিন বলেন, গোয়েন্দা কর্মকর্তাদের কাছ থেকে নিরাপত্তাজনিত পরামর্শ পাওয়ার পর তার সরকার চার রুশ কূটনীতিককে বহিষ্কার করেছে।

তিনি বলেন, কর্মকর্তাদের দেশ ছেড়ে যেতে বলা হয়েছে। কারণ, তাদের কার্যক্রম কূটনৈতিক আচরণের আন্তর্জাতিক নিয়ম অনুযায়ী নয়।

এদিকে, একজন চেক কর্মকর্তা বার্তা সংস্থা এএফপিকে বলেন, প্রাগ থেকে রাশিয়ার ডেপুটি অ্যাম্বাসেডরকে বহিষ্কার করা হয়েছে।

চেক পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় টুইটে জানায়, আমাদের মিত্রদের সঙ্গে আমরাও ইইউতে রাশিয়ান গোয়েন্দাদের উপস্থিতি কমিয়ে দিচ্ছি।

বুধবার পোল্যান্ড গুপ্তচরবৃত্তিতে জড়িত থাকার সন্দেহে ৪৫ জন কূটনীতিককে বহিষ্কার করেছে।

পোল্যান্ডের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মারিউস কামিনসকি টুইটারে লেখেন, পোলিশ গোয়েন্দা কর্মকর্তারা ‘আমাদের দেশে রাশিয়ান বিশেষ সার্ভিস নেটওয়ার্ক ভেঙে ফেলছে’।

এই মাসের শুরুর দিকে বুলগেরিয়া, লিথুয়ানিয়া, লাটভিয়া এবং এস্তোনিয়া রাশিয়ান দূতাবাসের মোট ২০ জন কর্মীকে বহিষ্কার করেছে।

সূত্র : আরটিভি
এম এস, ৩০ মার্চ

Back to top button