ফুটবল

ব্রুনো ফার্নান্দেসের জোড়া গোলে বিশ্বকাপে পর্তুগাল

উত্তর মেসিডোনিয়াকে ২-০ গোলে হারিয়ে কাতারের টিকিট কাটলো পর্তুগাল। এই ম্যাচের আগে ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো রীতিমতো ঘোষণাই দিয়ে রেখেছিলেন ‘পর্তুগালকে ছাড়া বিশ্বকাপই হবে না’ বলে। মাঠের পারর্ফম্যান্সেও সেটা করেও দেখালেন রোনালদোরা।

মঙ্গলবার দিবাগত রাতে পোর্তোর এস্তাদিও দ্রাগাও স্টেডিয়ামে বাঁচা-মরার ম্যাচে জয়ের প্রেরণা নিয়ে মাঠে নেমেছিলেন সময়ের সেরা ফুটবলার রোনালদো।

ম্যাচ শুরুর ১৪ মিনিটের মাথায় ডিয়োগো জোটার পাস থেকে গোলের খুব কাছেও চলে গিয়েছিলেন রোনালদো, তবে তার শটটা সে যাত্রায় গোল পোস্টের দেখা পায়নি। তবে রোনালদোর গোল না পাওয়ার আফসোসটা মিটল কিছুক্ষণ পরই। ম্যাচের ৩২ মিনিটের মাথায় মাঝমাঠ থেকে বল পেয়ে প্রতিপক্ষের ডি বক্স বরাবর চলে যান রোনালদো। ঠান্ডা মাথায় তিনি পাস দেন ক্লাব সতীর্থ ব্রুনো ফার্নান্দেজকে। ব্রুনো ডান পায়ের শটে বল মেসিডোনিয়ার জালে জড়ান। তবে এ গোলে রোনালদো-ব্রুনোর কৃতিত্বের সঙ্গে সমান দায় আছে মেসিডোনিয়ান মিডফিল্ডার স্টেফান রিস্টোভস্কিরও। তার ভুল পাস থেকেই যে বলটা পায় রোনালদো।

১-০ গোলের লিড নিয়েই প্রথমার্ধের খেলা শেষ করে পর্তুগাল। দ্বিতীয়ার্ধের শুরুর থেকেই আক্রমণাত্মক ভূমিকায় দেখা যায় পর্তুগালকে। তার সফলতাও মেলে ৬৫ মিনিটে। এবারও গোল করেন ব্রুনো ফার্নান্দেজ। জোটার বাড়ানো বলে দারুণ এক ভলিতে ব্রুনো পরাস্ত করেন মেসিডোনিয়া গোলরক্ষক দিমিত্রেভস্কিকে। আর এ গোলের মধ্য দিয়েই ২-০ গোলে জয় নিয়ে পর্তুগাল টিকিট কাটে কাতার বিশ্বকাপের।

সূত্র : বাংলাদেশ জার্নাল
এন এইচ, ৩০ মার্চ

Back to top button