ক্রিকেট

স্বাধীনতা দিবস ক্রিকেটে নান্নুদের কাছে হারলেন পাইলটরা

ঢাকা, ২৬ মার্চ – ডাউন দ্য উইকেটে এসে উড়িয়ে মারলেন রাজিন সালেহ। চোখের পলকে হাওয়ায় ভাসতে ভাসতে বল চলে গেল সীমানার ওপারে। শরীর অনেক বাড়লেও খেলাটাকে এখনো যে ভুলেননি বুঝিয়ে দিলেন আফতাব আহমেদ অসাধারণ এক ক্যাচ ধরে। স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে আয়োজিত ক্রিকেট ম্যাচে সাবেক এই ক্রিকেটাররা নিজেদের সেরাটা নিংড়ে দিয়ে মেতে ওঠেন উৎসবে।

শনিবার (২৬ মার্চ) বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) আয়োজনে মিরপুরে একাডেমি মাঠে বসে সাবেক ক্রিকেটারদের মিলনমেলা। লাল দল ও সবুজ দলে ভাগ হয়ে তারা লড়াই করেন টি-টোয়েন্টি ম্যাচে। এই প্রীতি ম্যাচে মিনহাজুল আবেদীন নান্নুর লাল দলের সঙ্গে পারেনি খালেদ মাসুদ পাইলটের সবুজ দল।

টস জিতে লাল দল ব্যাটিং করতে নেমে ৮ উইকেটে ২৬৯ রানের বিশাল সংগ্রহ করে। রান তাড়া করতে নেমে সবুজ দল ১৮.৫ ওভারে ১৯৫ রানে অলআউট হয়। ৭৪ রানে জয় নিয়ে মাঠ ছাড়েন নান্নুরা।

লাল দলের হয়ে ১০টি ছয় ও ৩টি চারের মারে সর্বোচ্চ ৮৭ রান করেন রাজিন সালেহ। তিনি খেলেন মাত্র ৩৭ বল। অল্পের জন্য পাননি শতক। ৩৮ বলে ৭৭ রান করেন তুষার ইমরান। এ ছাড়া হান্নান সরকার ২৭ ও এম এ রবিন করেন ৩২ রান। ব্যাটিংয়ে নামতে হয়নি নান্নুকে। সবুজ দলের হয়ে হাসিবুল হোসেন শান্ত একাই নেন ৫ উইকেট। এ ছাড়া ২ উইকেট নেন রাসেল।

রান তাড়া করতে নেমে ভালো শুরু করেও খেই হারিয়ে ফেলে সবুজ দল। নিয়মিত বিরতিতে দলটি উইকেট হারাতে থাকে। সর্বোচ্চ ৬২ রান করেন জামাল বাবু। এ ছাড়া জাবেদ ওমর ও জাহাঙ্গীর আলম ৩১ রান করে আউট হন। লাল দলের হয়ে একাই ৫ উইকেট নেন রবিন। এ ছাড়া সানোয়ার নেন ২ উইকেট।

জয় পরাজয় ছাপিয়ে সাবেক এই ক্রিকেটরারা উপভোগ করেন ম্যাচটি। প্রতি বছরের ন্যায় এই বছরও খেলার সঙ্গে হাসি-আড্ডায় মাতিয়ে রাখেন মিরপুর।

সূত্র : রাইজিংবিডি
এন এইচ, ২৬ মার্চ

Back to top button