টলিউড

‘রাস্তায় যাতে বাথরুম না পায় এজন্য পানি কম খাই’

কলকাতা, ২৪ মার্চ – ভারতীয় বাংলা সিনেমার অভিনেত্রী পার্নো মিত্র। বেশ কিছু দর্শকপ্রিয় সিনেমা উপহার দিয়েছেন তিনি। মোস্তফা সরওয়ার ফারুকী নির্মিত ‘ডুব’ সিনেমায় অভিনয় করেছেন পার্নো। কলকাতার নতুন একটি সিনেমায় নাম লেখালেন তিনি। ‘সুসু’ নামের এ সিনেমা পরিচালনা করছেন শিব রাম শর্মা।

সিনেমাটিতে পার্নো মিত্রর ফার্স্ট লুক বুধবার (২৩ মার্চ) মুক্তি পেয়েছে। তাতে দেখা যায়, পার্নোর পরনে ছাপা সালোয়ার-কামিজ, ওড়না। কানে বড় ঝুমকো রিং। খোলা চুল, কাঁধে ব্যাগ। এমন সাজে সুনেত্রা নামের সাধারণ এক নারীর প্রতিনিধি হয়ে উঠেছেন পার্নো। সুনেত্রা ‘সুসু’ সিনেমার কেন্দ্রীয় চরিত্র।

শহর বা গ্রামের অসংখ্য নারী রাস্তাঘাটে প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে না পারার যন্ত্রণায় ভোগেন। এই সমস্যাই পরিচালক শিব রাম শর্মা আগামী ‘সুসু’ সিনেমার বিষয় চূড়ান্ত করেছেন। স্বাভাবিকভাবেই সিনেমাটির গল্প সাড়া ফেলেছে। আজ সিনেমাটির দৃশ্যধারণের কাজ শুরু হয়েছে।

ভারতীয় একটি সংবাদমাধ্যমে পার্নো মিত্র বলেন—‘‘মেয়েদের ঋতুস্রাব নিয়ে একাধিক সিনেমা হয়েছে। কিন্তু টয়লেট করার সমস্যা নিয়ে শুধু বাংলায় নয়, মনে হয় সর্ব ভারতীয় স্তরে প্রথম সিনেমা হতে চলেছে ‘সুসু’। আরও ভালো লাগছে, একজন পুরুষ প্রথম মেয়েদের এই সমস্যা অনুভব করলেন। তাকে ক্যামেরাবন্দি করতে চলেছেন।’’

ব্যক্তিগত জীবনে পার্নো মিত্র টয়লেটের এই সমস্যায় পড়েছেন। তা উল্লেখ করে পার্নো মিত্র বলেন—‘রোজ এই সমস্যায় পড়ি। বিশেষ করে আউটডোর শুটিং বা গ্রামগঞ্জে স্টেজ শো করতে গিয়ে এই সমস্যায় বেশি পড়েছি। মাঝ রাস্তায় যাতে বাথরুম না পায় এজন্য পানি কম খাই। গ্রামে তবু কারো বাড়িতে গিয়ে টয়লেট ব্যবহার করতে পারি; কিন্তু শহরে সমস্যা অনেক বেশি।’

আলোচিত ‘দ্য কাশ্মীর ফাইলস’ সিনেমার পৃষ্ঠপোষকতা করেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যনার্জিও একজন নারী। পার্নোর দাবি—মুখ্যমন্ত্রী যদি সিনেমাটি পৃষ্ঠপোষকতা করেন তা হলে এই সিনেমা ঘিরে সচেতনতা আরও বাড়বে।

এন এইচ, ২৪ মার্চ

Back to top button